‘পেন গান’ বানিয়েছে মাওবাদীরা, সন্দেহ ভারতীয় পুলিশের

প্রকাশ : ২৩ জুলাই ২০১৮, ০০:০০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

ভারতের ছত্তিশগড় রাজ্যে মাওবাদী বিদ্রোহীদের সঙ্গে বন্দুক লড়াইয়ের পর উদ্ধার করা অস্ত্রের মধ্যে একটি বিশেষ অস্ত্র খুঁজে পেয়েছে সে দেশের নিরাপত্তাবাহিনী।

বিশেষ এই অস্ত্রটিকে ‘পেন গান’ বললে সবচেয়ে ভালোভাবে বর্ণনা করা যায় বলে জানিয়েছে এনডিটিভি। বিশেষ এই বন্দুকটি মাওবাদীদের কারিগরি দল উদ্ভাবন করেছে বলে সন্দেহ পুলিশের।

বৃহস্পতিবারের ওই লড়াইয়ে চার নারী বিদ্রোহীসহ আট মাওবাদী বিদ্রোহী নিহত হয়েছে বলে এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। ওই দিন বন্দুক লড়াইয়ের পর রাজ্যটির বিজাপুর ও দান্তেওয়াদা জেলার সীমান্তসংলগ্ন টিমিনার ও পুষনার গ্রামে তল্লাশি অভিযান চালায় জেলা রিজার্ভ গার্ড ও স্পেশাল টাস্কফোর্সের যৌথবাহিনী। সেখানে তল্লাশিকালে অন্যান্য অস্ত্রের সঙ্গে ওই অদ্ভুত দর্শন যন্ত্রটি খুঁজে পায় তারা।

দান্তেওয়াদা জেলা পুলিশ সুপার কামালোচন কশ্যপ বলেছেন, একটি পেন গানসহ সাতটি অস্ত্র খুঁজে পেয়েছি আমরা। পেন গানটি নকশালীদের স্থানীয় কারিগরি দল তৈরি করেছে। পেন গানটিতে নাইন এমএম বুলেট ব্যবহার করে তারা, যেটি তৈরিতে ছোট পাইপ ও ট্রিগার হিসেবে পিন ব্যবহার করা হয়েছে। পেন গানটির রেঞ্জ নয় থেকে ১০ মিটার।

বন্দুক লড়াই চলার সময় নারী মাওবাদী কমান্ডার জাইনি আহত হওয়ার পর নিজের ইনসাস রাইফেল ফেলে দিয়ে এটি দিয়ে দুটি গুলি করেছে বলে দাবি পুলিশের। জাইনি স্থানীয় ভাইরামগাড এলাকার এরিয়া কমান্ডার।

অস্ত্রটি সম্পর্কে জ্ঞাত এমন কয়েকজন এনডিটিভিকে জানিয়েছেন, মাওবাদীদের ছোট ছোট দল পেন গান অস্ত্রটি ব্যবহার করে, যেটি কোনো সন্দেহের উদ্রেক না করেই সহজে বহন করা যায়। জরুরি পরিস্থিতিতে মাওবাদী ক্যাডাররা তাদের মূল অস্ত্র হারিয়ে ফেললে এই পেন গান ব্যবহার করে থাকে বলে জানিয়েছেন তারা।

গোপন সংবাদের সূত্র ধরে বিজাপুর ও দান্তেওয়াদা জেলার সীমান্ত এলাকায় অভিযান শুরু করেছিল যৌথবাহিনী। যৌথবাহিনীর সঙ্গে দুই ঘণ্টা ধরে বন্দুক লড়াইয়ের পর সেখানে অবস্থান নেওয়া চার নারী যোদ্ধাসহ আট মাওবাদী বিদ্রোহীর সবাই নিহত হন।

"