প্রেমিক দেখা না করায় আত্মহত্যা

প্রকাশ : ০৯ জুলাই ২০১৮, ০০:০০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
ama ami

ভারতে ২৫ বছর বয়সী এক নারী তিনতলা থেকে লাফ দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। প্রেমিক দেখা করতে না চাওয়ায় এবং তার ফোন রিসিভ করেননি বলেই তিনি এমনটা করেছেন। মৃত নারীর সঙ্গে থাকা একটি সুইসাইড নোট থেকে পুলিশ এ তথ্য জানতে পেরেছে। শনিবার বিকালে উত্তর প্রদেশের নয়ডা শহরের দ্য গ্রেট ইন্ডিয়া প্লেস (টিজিআইপি) মলের ৩৮-এ সেক্টরে এ ঘটনা ঘটে। টিজিআইপির সিকিউরিটি ম্যানেজম্যান্টের এক মুখপাত্র জানান, ওই নারী তিনতলা থেকে লাফ দিয়ে পড়ার পর মলের সিকিউরিটি ম্যানেজমেন্টের কর্মীরা তাকে একটি অ্যাম্বুলেন্সে করে হাসপাতালে পাঠিয়ে দেন। হাসপাতালে দায়িত্বরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। বিকাল ৩টার দিকে এ ঘটনা ঘটে বলে জানান তিনি।

প্রত্যক্ষদর্শীরা বলছেন, ওই নারী একটি চলন্ত সিঁড়ির পাশে ঘণ্টাখানেক বসে থাকার পর লাফ দেন। আশি নামের এক নিরাপত্তাকর্মী জানান, তিনি চলন্ত সিঁড়ির পাশে ফোন হাতে নিয়ে বসেছিলেন। আমার কাছ থেকে পাঁচ মিটার দূরে অবস্থান করছিলেন তিনি। আমি তাকে কয়েকবার লক্ষ্য করেছিলাম। পরে হঠাৎ আমি লক্ষ্য করলাম নিচতলায় চেঁচামেচি হচ্ছে। সবাই বলছিল তিনতলা থেকে একজন পড়ে গেছেন। কাছে গিয়ে দেখলাম ইনি সেই নারী যিনি সিড়ির পাশে ফোন হাতে বসেছিলেন। পুলিশ জানিয়েছে, আত্মহত্যাকারী নারী উত্তর প্রদেশের কাশগঞ্জ জেলার বাসিন্দা। তিনি বারোলা গ্রামে ৪৯ নম্বর সেক্টরে ভাড়া বাড়িতে থাকতেন। তিনি নয়ডাতে গত কয়েক মাস ধরে একটি বেসরকারি কোম্পানিতে কর্মরত ছিলেন।

 

সুইসাইড নোটে ওই নারী উল্লেখ করেছেন- তার প্রেমিক তার সঙ্গে দেখা করতে না চাওয়ায় এবং ফোন রিসিভ না করায় হতাশ ছিলেন। তাই এ জীবন তিনি রাখতে চাননি। এ কারণেই তিনি নিজেকে শেষ করে দেন। নয়ডার সার্কেল অফিসার অনিত কুমার জানান, ‘ওই ব্যক্তি আসলেই তাকে আত্মহত্যায় প্ররোচনা করেছেন কি না এবং তদন্তের পরিপ্রেক্ষিতে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া যাবে কি না, তা জানতে আমরা অনুসন্ধান করে যাচ্ছি।

"