ফ্যাটি লিভার

প্রকাশ : ২৮ মার্চ ২০১৮, ০০:০০

ডা. মামুন-আল-মাহতাব (স্বপ্নীল)

একটা সময় ছিল যখন ধারণা করা হতো, হার্ট বা ব্রেনে চর্বি জমে হার্ট অ্যাটাক বা স্ট্রোকের মতো ভয়াবহ রোগ হলেও লিভারের ক্ষেত্রে বিষয়টি তেমন নয়। কিন্তু বিগত দশকে সে ধারণায় আমূল পরিবর্তন এসেছে। বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বৈজ্ঞানিক গবেষণায় এটি আজ প্রমাণিত, ফ্যাটি লিভার লিভারের অন্যতম প্রধান রোগ। পশ্চিমা বিশ্বে এর প্রাদুর্ভাব ব্যাপক। ২০ শতাংশ আমেরিকান ফ্যাটি লিভারে আক্রান্ত। আমাদের দেশেও এ চিত্র বিশেষ করে শহর এলাকায় খুব একটা কম নয়।

ডায়াবেটিস রোগীর এ রোগে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি খুব বেশি। ফ্যাটি লিভারের অন্য উল্লেখযোগ্য কারণগুলোর মধ্যে রয়েছে অতিরিক্ত ওজন, উচ্চরক্তচাপ, রক্তে চর্বি বেশি থাকা, থাইরয়েডের সমস্যা, ক্রনিক হেপাটাইটিস ‘সি’ এবং ইনসুলিন রেজিস্টেন্স। এটি এখন সুপ্রতিষ্ঠিত লিভার সিরোসিস ও লিভার ক্যানসারের অন্যতম প্রধান কারণ ফ্যাটি লিভার। ফ্যাটি লিভারে আক্রান্ত অনেকেরই লিভারে ক্রনিক হেপাটাইটিস দেখা দিতে পারে, যাকে আমরা বলি স্টিয়াটো হেপাটাইটিস। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে সম্প্রতি পরিচালিত এক গবেষণায় দেখা গেছে, হেপাটাইটিস ‘বি’ ভাইরাসের পর ফ্যাটি লিভারই এ দেশে ক্রনিক হেপাটাইটিসের প্রধান কারণ।

বেশির ভাগ ক্রনিক লিভার ডিজিজ রোগীর মতো ফ্যাটি লিভারের রোগীদেরও কোনো লক্ষণ থাকে না। তাদের কেউ কেউ পেটের ডান পাশে ওপরের দিকে ব্যথা বা অস্বস্তি, দুর্বলতা কিংবা খুব অল্পতেই ক্লান্ত হয়ে পড়ার কথা বলে থাকেন। শারীরিক পরীক্ষা-নিরীক্ষায় তাদের প্রায় ৫০ শতাংশেরই লিভার বড় পাওয়া যায়। রক্ত পরীক্ষায় সিরাম ট্রান্স অ্যামাইনেজ বেশি থাকতে পারে। তবে এটি স্বাভাবিক থাকলেই যে লিভারে হেপাটাইটিস নেইÑএ কথা বলা যায় না। ফ্যাটি লিভার নির্ণয়ে সবচেয়ে বেশি ব্যবহৃত পরীক্ষাটি হচ্ছে আলট্রাসনোগ্রাম, যদিও সিটিস্ক্যান বা এমআরআই এ ক্ষেত্রে বেশি নির্ভরযোগ্য। তবে নিশ্চিত করে ফ্যাটি লিভার নির্ণয়ের পরীক্ষাটি হচ্ছে লিভার বায়োপসি।

ফ্যাটি লিভার চিকিৎসার মূল লক্ষ্য হলো, লিভারে সিরোসিস ও ক্যানসারের ঝুঁকি প্রতিরোধ করা। অতিরিক্ত মেদ কমানো ফ্যাটি লিভার চিকিৎসার একটি অন্যতম দিক। ওজন কমানোর জন্য বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী পরিকল্পিত ডায়েট কনট্রোল, এক্সারসাইজ, ওষুধ সেবন কিংবা প্রয়োজনে অপারেশন করা যেতে পারে। পাশাপাশি ফ্যাটি লিভারের কারণ নির্ণয় ও তার যথাযথ চিকিৎসা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এ দেশেও সীমিত পরিসরে গবেষণা চলছে। শতভাগ কার্যকর ওষুধ আবিষ্কার না হলেও বাজারে কিছু ওষুধ আছে, যা ফ্যাটি লিভারের চিকিৎসায় উপকারী। এর বেশির ভাগ বাংলাদেশেও পাওয়া যায়।

লেখক : সহকারী অধ্যাপক, লিভার বিভাগ

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়

"