প্রাণহানি লাখ ছুঁই ছুঁই

আক্রান্ত প্রায় ১৬ লাখ

প্রকাশ : ১১ এপ্রিল ২০২০, ০০:০০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

বিশ্বব্যাপী বুলেটের গতিতে বাড়ছে করোনা আক্রান্ত মানুষের সংখ্যা। এরই মধ্যে এই ভাইরাসে সংক্রমিত শনাক্ত হয়েছেন ১৬ লাখেরও বেশি। অথচ এক দিন আগেও তা ছিল ১৫ লাখ। গত শুক্রবার পর্যন্ত এ সংখ্যা ছিল ১০ লাখেরও কম। আর বিশ্বব্যাপী এখন পর্যন্ত করোনায় প্রায় এক লাখের মতো মানুষের প্রাণহানি হয়েছে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত এ সংখ্যা প্রায় ৯৭ হাজার। গত ডিসেম্বরে চীনে প্রথম করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার পর থেকে বিশ্বের ১৯২ দেশে এ ভাইরাসে আক্রান্ত বেড়ে ১৫ লাখ ৬৭ হাজার ৫৯০ জনে দাঁড়িয়েছে। তাদের মধ্যে ৩ লাখ ৫৭ হাজার মানুষ সুস্থ হয়ে উঠেছেন। বিশ্বের বিভিন্ন দেশের সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের এবং বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার দেওয়া তথ্য থেকে সংগ্রহ করা উপাত্ত ব্যবহার করে তৈরি করা এ পরিসংখ্যান করোনাভাইরাসের প্রকৃত আক্রান্তের সংখ্যার শুধু একটি আংশিক প্রতিফলন বলে ধারণা করা হচ্ছে। কেননা, বিশ্বের অনেক দেশ শুধু মারাত্মকভাবে আক্রান্ত লোকদেরই করোনা পরীক্ষা করছে। করোনাভাইরাসে ইতালিতে আক্রান্ত হয়েছে ১ লাখ ৪৩ হাজার ৬২৬ জন এবং মারা গেছে ১৮ হাজার ২৭৯ জন। মৃতের এ সংখ্যা বিশ্বে সর্বোচ্চ। গত ফেব্রুয়ারি মাসের শেষের দিকে দেশটিতে প্রথম করোনাভাইরাসে মৃত্যু ঘটে। স্পেনে করোনাভাইরাসে ১ লাখ ৫২ হাজার ৪৪৬ জন আক্রান্ত এবং ১৫ হাজার ২৩৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রে করোনাভাইরাসে ৪ লাখ ৫১ হাজার ৪৯১ জন আক্রান্ত এবং ১৫ হাজার ৯৩৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রে মৃত্যুর এ সংখ্যা বিশ্বে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ এবং আক্রান্তের সংখ্যা সর্বোচ্চ। দেশটিতে সবচেয়ে দ্রুত এ মহামারি ভাইরাস ছড়ানোর প্রবণতা লক্ষ করা যাচ্ছে। ফ্রান্সে করোনাভাইরাসে ১২ হাজার ২১০ জনের মৃত্যু এবং ১ লাখ ১৭ হাজার ৭৪৯ জন আক্রান্ত হয়েছে। এরপর যুক্তরাজ্যে করোনাভাইরাসে ৭ হাজার ৯৭৮ জনের মৃত্যু এবং ৬৫ হাজার ৭৭ জন আক্রান্ত হয়েছে। চীনে করোনাভাইরাসে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৩ হাজার ৩৩৫ এবং আক্রান্তের সংখ্যা ৮১ হাজার ৮৬৫ জনে দাঁড়িয়েছে। দেশটিতে ৭৭ হাজার ৩৭০ জন সুস্থ হয়ে উঠেছে। প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে ইসলামি প্রজাতন্ত্রের দেশ ইরানে নতুন করে আরো ১২২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্য দেশটিতে করোনায় মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল ৪ হাজার ২৩২ জনে। শুক্রবার ইরানের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম আল জাজিরা এ তথ্য জানায়।

রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র কিয়ানুশ জাহানপুর জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় ইরানে নতুন করে করোনা শনাক্ত হয়েছে ১ হাজার ৯৭২ জনের। সরকারি হিসাবে দেশটিতে এখন পর্যন্ত মোট ৬৮ হাজার ১৯২ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে ৩ হাজার ৯৬৯ জনের অবস্থা গুরুতর। এশিয়া ও মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোর মধ্যে চীনের পরপরই ইরান করোনায় সবচেয়ে বেশি ভুক্তভোগী। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত বিশ্বব্যাপী এখন পর্যন্ত করোনায় ভাইরাসে সংক্রমিত শনাক্ত হয়েছেন ১৬ লাখেরও বেশি। প্রাণহানি বেড়ে দাঁড়িয়েছে প্রায় এক লাখের মতো। অন্যদিকে আক্রান্তদের মধ্যে বিশ্বব্যাপী এখন পর্যন্ত ৩ লাখ ৫৬ হাজারের মতো মানুষ সেরে উঠেছেন।

নতুন দেশ হিসেবে বুধবার সোমালিয়া ও দিজবৌতিতে প্রথম একজন করে করোনাভাইরাস সংক্রান্ত মৃত্যুর কথা জানানো হয়।

এশিয়ায় করোনাভাইরাসে ১ লাখ ২৮ হাজার ৬৯০ জন আক্রান্ত ও ৪ হাজার ৫১৪ জন মারা গেছেন। মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোতে মোট ৮৮ হাজার ৯৮৫ জন আক্রান্ত এবং ৪ হাজার ৩৫৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। লাতিন আমেরিকা ও ক্যারিবীয় দেশগুলোতে করোনাভাইরাসে ৪৬ হাজার ৮৩৩ জন আক্রান্ত এবং ১ হাজার ৮৭৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। আফ্রিকায় করোনাভাইরাসে মোট ১১ হাজার ৯৫৩ জন আক্রান্ত হয়েছে এবং ৬২৭ জন মারা গেছে। ওশেনিয়ায় করোনাভাইরাসে ৭ হাজার ২২৫ জন আক্রান্ত ও ৫৮ জনের মৃত্যু হয়েছে।

ইতালি : ১৮,২৭৯

স্পেন : ১৫,২৩৮

যুুক্তরাষ্ট্র : ১৫, ৯৩৮

ফ্রান্স : ১২,২১০

যুক্তরাজ্য : ৭,৯৭৮

ইরান : ৪,২৩২

 

"