ওসি মোয়াজ্জেম দেশেই, সীমান্তে সতর্কতা

প্রকাশ : ১৩ জুন ২০১৯, ০০:০০

নিজস্ব প্রতিবেদক ও হিলি (দিনাজপুর) প্রতিনিধি

নুসরাত হত্যাকা-ের সঙ্গে জড়িত ফেনীর সোনাগাজীর সাবেক ওসি মোয়াজ্জেম হোসেনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করায় সীমান্ত অতিক্রম করে তিনি যেন ভারতে পালিয়ে না যেতে পারেন সেজন্য হিলি সীমান্তে বাড়তি সতর্কতা জারি করা হয়েছে। এ সংক্রান্ত একটি চিঠি হিলি ইমিগ্রেশনে পৌঁছালে এই সতর্কতা জারি করা হয়। এদিকে, মোয়াজ্জেম হোসেন এখনো গ্রেফতার না হলেও তিনি দেশেই আছেন বলে মনে করছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল। গতকাল বুধবার কারা অধিদফতরে এক অনুষ্ঠানের পর সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ওসি মোয়াজ্জেম হোসেনকে ধরা যাচ্ছে না বিষয়টা ঠিক না। তার বাইরে যাওয়ার সব পথ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। সে দেশেই আছে। আর তাকে শিগগিরই গ্রেফতার করা হবে।

হিলি ইমিগ্রেশনের ওসি ফিরোজ কবির বলেন, সাবেক ওসি মোয়াজ্জেমের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারির পরই পুলিশের হেডকোয়ার্টার থেকে জেলা পুলিশ সুপারের মাধ্যমে আমাদের কাছে ওসি মোয়াজ্জেমের পাসপোর্ট নাম্বার দেওয়া হয়েছে। আমরা নিশ্চিত করেছি যাতে তিনি এই ইমিগ্রেশন ব্যবহার করে কোনো মতেই ভারতে গমন করতে না পারেন।

তিনি আরো জানান, হিলি ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট দিয়ে যাতায়াতরত সব ধরনের পাসপোর্ট যাত্রীদের ছবি ওয়ান্টেডভুক্ত তালিকার সঙ্গে মিলিয়ে নিয়ে তাদের নাম-পরিচয় নিশ্চিত হওয়ার পরেই আসা-যাওয়ার অনুমতি দেওয়া হচ্ছে।

তবে, ২০ বিজিবি ব্যাটালিয়নের ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক মেজর আবু নঈম খন্দকার জানান, ওসি মোয়াজ্জেমের দেশত্যাগের বিষয়ে নিষেধাজ্ঞা সম্পর্কিত কোনো চিঠি বা পরিপত্র আমাদের কাছে আসেনি। তবে আমরা সবসময় সীমান্ত এলাকায় কঠোর অবস্থায় থাকি। কোনোক্রমেই দেশে অপরাধ করে কোনো অপরাধী অবৈধভাবে দেশত্যাগ করতে পারবে না।

ফেনীতে হত্যাকা-ের শিকার মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফির জবানবন্দির ভিডিও ইন্টারনেটে ছড়ানোয় অভিযোগে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের এক মামলার আসামি সোনাগাজী থানার সাবেক ওসি মোয়াজ্জেম হোসেন। বাংলাদেশ সাইবার ট্রাইব্যুনাল পুলিশের এই পরিদর্শকের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করলেও তা তামিল নিয়ে ফেনী ও রংপুর পুলিশের মধ্যে চলে ঠেলাঠেলি। ফলে পুলিশ বাহিনী তাদের কর্মকর্তা মোয়াজ্জেমকে গ্রেফতারে আদৌ আন্তরিক কি-না সেই প্রশ্ন তোলে ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ।

 

"