মেয়র পদে সাঈদ খোকনের ৪ বছর পূর্ণ

প্রকাশ : ১৭ মে ২০১৯, ০০:০০

নিজস্ব প্রতিবেদক

মেয়র হিসেবে চার বছর পূর্ণ করলেন ঢাকার দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন। ২০১৫ সালের ২৮ এপ্রিল নির্বাচনের পর ৬ মে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে শপথ নেন তিনি। সাঈদ খোকন ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের প্রয়াত সাবেক সভাপতি এবং মেয়র মোহাম্মদ হানিফের ছেলে। তিনি পুরান ঢাকার অন্যতম প্রভাবশালী ব্যক্তিত্ব মাজেদ সরদারের নাতি। বাবা মোহাম্মদ হানিফের হাত ধরেই সাঈদ খোকন রাজনীতিতে নামেন।

আর ১৯৮৭ সালে ওয়ার্ড শাখার আইনবিষয়ক সম্পাদক হিসেবে আওয়ামী লীগে নাম লেখান সাঈদ খোকন। ১৯৯৯ সালে ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগে অংশগ্রহণ, পরে ২০০৪ সালে মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক হন তিনি।

এদিকে চার বছরে কী কাজ করেছেন আর আগামী কয়েক মাসে কি করতে চানÑ এসব বিষয় তুলে ধরতে গণমাধ্যম কর্মীদের মুখোমুখি হচ্ছেন ডিএসসিসি মেয়র। আজ শুক্রবার বিকাল সাড়ে ৪টায় হোটেল ইন্টারকন্টিনেন্টালের বলরুমে চার বছর পূর্তি উপলক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়েছে।

জানা গেছে, চার বছরের কাজের বর্ণনা তুলে ধরবেন মেয়র। এর মধ্যে রয়েছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনে আধুনিক প্রযুক্তির ৪১ হাজার ১৩৩টি এলইডি সড়কবাতি স্থাপন করা হয়েছে। ফলে নাগরিকরা নিরাপদে ও স্বাচ্ছন্দ্যে চলাফেরা করতে পারছেন। এছাড়া নবগঠিত ১৮টি ওয়ার্ডে ১৫ হাজার এলইডি বাতি স্থাপনের কাজ চলমান।

এ চার বছরে সরকার ও করপোরেশনের নিজস্ব অর্থায়নে ৬৬৯ দশমিক ৯১ কিলোমিটার রাস্তা, ৬৩১ দশমিক ৭০ কিলোমিটার নর্দমা, ১৩৩ দশমিক ১৬ কিলোমিটার ফুটপাত নির্মাণ ও সংস্কার করা হয়েছে। এছাড়া প্রায় ৬০০ কিলোমিটার রাস্তা, ৫০০ কিলোমিটার নর্দমা এবং ১০০ কিলোমিটার ফুটপাত নির্মাণ ও সংস্কারের কাজ চলমান রয়েছে।

পরিচ্ছন্নকর্মী নিবাস নির্মাণ : পরিচ্ছন্ন কর্মীদের জন্য দয়াগঞ্জে আধুনিক পরিচ্ছন্নকর্মী নিবাস উদ্বোধন করা হয়েছে। এছাড়া ধলপুর, লালবাগ ও গণকটুলিতে ছয় তলাবিশিষ্ট ছয়টি নিবাস নির্মাণ করা হয়েছে। আরো ছয়টির কাজ চলমান রয়েছে।

জলাবদ্ধতা দূরীকরণে ৪৯৭ কিলোমিটার উন্মুক্ত নর্দমা এবং ৫৩৭ কিলোমিটার পাইপ ড্রেনের আবর্জনা অপসারণ করা হয়েছে। জেট অ্যান্ড সাকার মেশিনের মাধ্যমে ড্রেনে জমাটবদ্ধ হয়ে থাকা আবর্জনা অপসারণ করা হচ্ছে। ফলে শান্তিনগর, নাজিমউদ্দিন রোড, গণকটুলী এবং বংশাল এলাকায় প্রায় চার যুগের জলাবদ্ধতা সমস্যা নিরসন হয়েছে।

প্রসঙ্গত, প্রায় দুই দশক আগে ইলিশ মাছ প্রতীক নিয়ে ডিএসসিসির মেয়র হয়েছিলেন মোহাম্মদ হানিফ। ভোটের লড়াইয়ে তিনি তখন হারিয়েছিলেন বিএনপি নেতা মির্জা আব্বাসকে। এর প্রায় ২১ বছরের ব্যবধানে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনে মেয়র পদে প্রার্থী হন হানিফেরই ছেলে সাঈদ খোকন। বাবার মতোই প্রতীক ইলিশ, প্রতিদ্বন্দ্বীও ছিলেন সেই মির্জা আব্বাস। সেবার মির্জা আব্বাসের সাইকেলের রথ যেমন থামিয়ে দিয়েছিলেন হানিফ, প্রতীক বদলে মগ নিয়েও লড়াইয়ে সাইদ খোকনের সঙ্গে উৎরাতে পারেননি এই বিএনপি নেতা।

মেয়র থাকা অবস্থায় ১৯৯৬ সালে ‘জনতার মঞ্চ’ গঠন করে বিএনপিবিরোধী আন্দোলনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে আলোচনায় ছিলেন হানিফ। ২০০৪ সালে গ্রেনেড হামলা থেকে শেখ হাসিনাকে রক্ষা করতে হানিফের ভূমিকাকে বঙ্গবন্ধুর স্নেহের ঋণ শোধ হিসেবেই দেখেন তার ঘনিষ্ঠরা। যখন মারা গিয়েছিলেন, তখনো তার মাথায় বিঁধে ছিল স্পিøন্টার।

 

"