বর্ষবরণের উৎসবে নারীর ছোট ব্যাগ ছাড়া সব নিষিদ্ধ

প্রকাশ : ১২ এপ্রিল ২০১৯, ০০:০০

নিজস্ব প্রতিবেদক

বৈশাখের প্রথম দিন বাংলা বর্ষবরণের উৎসবে রমনা পার্ক, সোহরাওয়ার্দী উদ্যান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসি, ধানমন্ডির রবীন্দ্র সরোবর ও হাতিরঝিল এলাকায় নারীদের ছোট ব্যাগ ছাড়া আর কিছুই আনা যাবে না। ঢাকার পুলিশ কমিশনার মো. আসাদুজ্জামান মিয়া পহেলা বৈশাখে রাজধানীর জন্য নেওয়া নিরাপত্তা ব্যবস্থার বিষয়ে গতকাল বৃহস্পতিবার সাংবাদিকদের জানাতে গিয়ে এ কথা বলেছেন।

তিনি বলেন, নিরাপত্তার স্বার্থে পহেলা বৈশাখে কেউ ব্যাগ, ছুরি, কাঁচি, ব্লেড, দিয়াশলাই বা অন্য কোনো দাহ্য পদার্থ নিয়ে অনুষ্ঠানস্থলে প্রবেশ করতে পারবেন না। তবে নারী দর্শনার্থীরা ছোট ব্যাগ আনতে পারবেন।

বৈশাখী উৎসব ঘিরে কোনো ধরনের হুমকি নেই জানিয়ে পুলিশ কমিশনার বলেন, রমনা পার্ক ও সোহারাওয়ার্দী উদ্যানে প্রবেশ পথে আর্চওয়ে থাকবে। প্রবেশ পথে পুলিশের পক্ষ থেকে আগতদের ফুল ও বাতাসা দিয়ে বরণ করা হবে।

রমনা পার্কের রেস্তোরাঁ গেট, অস্তাচল গেট, অরুনোদয় গেট দিয়ে শুধু প্রবেশ করা যাবে, আর উত্তরায়ণ গেট (মিন্টো রোডের পশ্চিম প্রান্ত) ও বৈশাখী গেট দিয়ে বের হতে পারবেন। শ্যামলীমা গেট, স্টার গেট ও নতুন গেট (বৈশাখী ও অস্তাচল গেটের মাঝামাঝি) দর্শনার্থীরা প্রবেশ ও বের হতে পারবেন।

অন্যদিকে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে শিখা চিরন্তন গেট, বাংলা একাডেমির বিপরীতে নতুন গেট ও তিন নেতার মাজারসংলগ্ন গেট দিয়ে শুধু প্রবেশ, রমনা কালীমন্দির গেট ও আইইবি গেট দিয়ে বের হওয়া যাবে বলে জানান আছাদুজ্জামান মিয়া।

তিনি বলেন, ওইদিন সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের ছবিরহাট ও টিএসসির বিপরীত পাশের গেট দুটি বন্ধ থাকবে।

ঢাকা মহানগর পুলিশের উপকমিশনার (দক্ষিণ) মুহাম্মদ মুরাদ আলী জানান, পহেলা বৈশাখে সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত ঢাকা মহানগর এলাকায় জনসাধারণ যাতে নিরাপদ ও নির্বিঘ্নে নববর্ষের অনুষ্ঠান উপভোগ করতে পারে সেজন্য যান চলাচলেও কিছু ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

ডাইভারশন ২৬ পয়েন্টে : সোনারগাঁও ক্রসিং, বাংলা মোটর ক্রসিং, পরিবাগ গ্যাপ, মৎস্য ভবন ক্রসিং, কার্পেট গলি, নেভাল চিফ গলি, সাকুরার গলি, পুলিশ ভবন ক্রসিং, সবজি বাগান ক্রসিং, মিন্টো রোড পূর্ব প্রান্ত, অফিসার্স ক্লাব ক্রসিং, সুগন্ধা ক্রসিং, কাকরাইল চার্চ ক্রসিং, শিল্পকলা একাডেমি গলি, দুদকের গলি, ইউবিএল ক্রসিং, জিরো পয়েন্ট ক্রসিং, হাইকোর্ট ক্রসিং, রোমানা চত্বর ক্রসিং, বকশীবাজার ক্রসিং, পলাশী ক্রসিং, নীলক্ষেত ক্রসিং, কাঁটাবন ক্রসিং, আজিজ সুপার মার্কেট ক্রসিং, প্রশাসন একাডেমি গলি ও শাহবাগ ক্রসিং।

গাড়ি পার্কিং : নৌবাহিনী ভর্তি তথ্য কেন্দ্র হতে হলিফ্যামিলি হাসপাতাল পর্যন্ত (উত্তর দিকের গাড়ি), জেব্রা ক্রসিং থেকে ইউবিএল এবং আদুল গণি রোড (পূর্ব-দক্ষিণ দিকের গাড়ি), কার্জন হল থেকে বঙ্গবাজার হয়ে ফুলবাড়িয়া (দক্ষিণ দিকের গাড়ি), মৎস্য ভবন থেকে সেগুনবাগিচায় (আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর গাড়ি), শিল্পকলা একাডেমি গলি (আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর গাড়ি), সুগন্ধা হতে অফিসার্স ক্লাব (ভিআইপি ও মিডিয়ার গাড়ি) ও কাঁটাবন হতে নীলক্ষেত হয়ে পলাশী (দক্ষিণ-পশ্চিম দিকের গাড়ি)।

৭ সড়কে যান বন্ধ : বাংলা মোটর-রূপসী বাংলা (ইন্টারকন্টিনেন্টাল)-শাহবাগ-টিএসসি-দোয়েল চত্বর, রূপসী বাংলা-কাকরাইল-মৎস্য ভবন-কদম ফোয়ারা, মৎস্য ভবন-শাহবাগ-কাঁটাবন, পলাশী-শহীদ মিনার-দোয়েল চত্বর-হাইকোর্ট ক্রসিং, বকশী বাজার-শহীদ মিনার-টিএসসি, শহীদুল্লাহ হল ক্রসিং-দোয়েল চত্বর, নীলক্ষেত-টিএসসি।

যান চলাচলের বিকল্প পথ : মিরপুর রোড-সায়েন্স ল্যাবরেটরি-নিউমার্কেট-আজিমপুর-বকশীবাজার-চাঁনখারপুল-গুলিস্তান। রাসেল স্কয়ার-সোনারগাঁও-রেইনবো-মগবাজার-মালিবাগ-রাজমনি-ইউবিএল-গুলিস্তান। মহাখালী-সাতরাস্তা-মগবাজার-কাকরাইল-রাজমনি-ইউবিএল-গুলিস্তান, ফার্মগেট-সোনারগাঁও-বাংলা মোটর-মগবাজার-মৌচাক-মালিবাগ-খিলগাঁও। ফার্মগেট-সোনারগাঁও-বাংলা মোটর-মগবাজার-কাকরাইল চার্চ-রাজমনি-পল্টন-মতিঝিল।

 

"