বাংলাদেশের জাগরণ নিয়ে উপন্যাস লিখতে চান সমরেশ মজুমদার

প্রকাশ : ০৮ ডিসেম্বর ২০১৮, ০০:০০

চট্টগ্রাম ব্যুরো

বাংলাদেশের জাগরণ নিয়ে উপন্যাস লেখার আগ্রহের কথা জানিয়েছেন খ্যাতিমান সাহিত্যিক সমরেশ মজুমদার। গতকাল শুক্রবার দুপুরে চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের বঙ্গবন্ধু হলে বাতিঘর আয়োজিত আলাপচারিতা অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা জানান। অনুষ্ঠানে সমরেশ মজুমদারের লেখা গান শোনান শিল্পী অনিন্দিতা। সমরেশ মজুমদার বলেন, বাংলাদেশের রাজনীতি ও মানুষের সংগ্রামের কথা অনেকে লেখেছেন। কিন্তু এ দেশের মানুষের ব্যাপক পরিবর্তন ১৯৪৭ সালের আগস্ট থেকে শুরু হয়েছে। তার আগেও হতে পারে। ভাষা আন্দোলন যে মানুষকে উদ্দীপ্ত করেছে, সেটি হতে পারে। শেখ সাহেবের আন্দোলনও হতে পারে। এসব যেমন দেখছি, এর বাইরে আরেকটা জাগরণ আমি দেখতে পাই। সেই জাগরণের গল্প লেখার খুব ইচ্ছে।

তিনি বলেন, সে সময় মুসলিম লীগের নেতা, অতি ধনী ব্যক্তিদের পরিবারের বেশির ভাগ মহিলার সঙ্গে বাংলাদেশের বেশির ভাগ মেয়েদের চেহারার কোনো মিল নেই। গায়ের রঙেও মিল নেই। বেশির ভাগ মেয়ে শ্যামলা ও উজ্জ্বল শ্যামলা। তাদের ধবধবে গায়ের রং, মোমের মতো গায়ের রং। একাত্তর থেকে পরিবর্তন শুরু হলো। এ সময়টা নিয়ে আমার উপন্যাস লেখার খুব ইচ্ছে।

ঠিক আড়াই বছর আগে ঈশ্বর নিয়ে যাওয়ার পরিকল্পনা করেছিল বলে মন্তব্য করে সমরেশ মজুমদার বলেন, প্রকৃতি কখন রক্তে দোলাচল তৈরি করে। সেবার যখন হাসপাতাল থেকে বাড়ি ফিরি, বাংলা অক্ষর চিনতে পারিনি। ছোট মেয়ে সেøটে অ, আ শিখিয়েছিল।

স্বাগত বক্তব্যে বাতিঘরের স্বত্বাধিকারী দীপঙ্কর দাশ বলেন, চার বছর আগে চট্টগ্রাম বাতিঘরে এসেছিলেন সমরেশ মজুমদার। পাঠকের ভালোবাসায় তিনি খুশি হয়েছিলেন। অসুস্থতা সত্ত্বেও তিনি আবার আমাদের আহ্বানে সাড়া দিয়েছেন। আলাপচারিতায় সঞ্চালক ছিলেন কবি বিশ্বজিৎ চৌধুরী।

"