তারেকের আইনজীবী বললেন

এ রায় অন্যায় ও বেআইনি

প্রকাশ : ১১ অক্টোবর ২০১৮, ০০:০০

আদালত প্রতিবেদক

প্রায় দেড় দশক আগে ঢাকার বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে নৃশংস গ্রেনেড হামলা চালিয়ে ২৪ জনকে হত্যার ঘটনার বিচারে আদালত যে রায় ঘোষণা করেছেন সেটাকে ‘অন্যায় ও বেআইনি’ বলে প্রত্যাখ্যান করেছেন দন্ডিত তারেক রহমানসহ বিএনপি নেতাদের আইনজীবীরা। রায়ের পর আদালত প্রাঙ্গণে তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় বিএনপির আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া সাংবাদিকদের বলেন, ২১ আগস্টের গ্রেনেড হামলার ঘটনায় হত্যা ও বিস্ফোরক দ্রব্য আইনের মামলায় তারেক রহমানের যাবজ্জীবন ও অন্যদের ফাঁসির যে রায় দেওয়া হয়েছে, তা ‘অন্যায় ও বেআইনি’।

আদালতের রায়ে ন্যায়বিচার প্রতিফলিত হয়নি মন্তব্য করে তিনি বলেন, হাওয়া ভবন, আবদুস সালাম পিন্টুর বাসা থেকে কোনো সাক্ষী আইসা এ মামলায় সাক্ষ্য দেননি। তারা এখানে বসে গ্রেনেড হামলার পরিকল্পনা করেছে; এটা কোনো সাক্ষী বলেনি। গ্রেনেড হামলার ঘটনায় ‘স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে’ তারেক রহমানসহ বিএনপি নেতাদের জড়িত করে দেওয়া বক্তব্য মুফতি হান্নান পরে প্রত্যাহার করে নিয়েছেন বলে দাবি করেন বিএনপির এই আইনজীবী।

সানাউল্লাহ বলেন, মুফতি হান্নানকে ৪০০ দিন রিমান্ডে রেখে যে জবানবন্দি নিয়েছে, সেই জবানবন্দি প্রত্যাহার করে সে বলেছে, তারেক রহমানের সঙ্গে, বিএনপি নেতাদের সঙ্গে তার কোনো দিন দেখাই হয়নি। এ মামলার কোনো সাক্ষী তারেক রহমানের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র ও গোপন বৈঠকের অভিযোগের বিষয়ে কোনো সাক্ষ্য দেননি বলেও দাবি করেন তিনি। বিএনপির আইন-বিষয়ক সম্পাদক বলেন, তারেক রহমান দেশে ফিরে এলে তারা এ রায়ের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতে আপিল করবেন।

 

"