সড়ক আইনের প্রতিবাদে পণ্য পরিবহন বন্ধ

প্রকাশ : ০৯ অক্টোবর ২০১৮, ০০:০০

নিজস্ব প্রতিবেদক

সদ্য পাস হওয়া সড়ক পরিবহন আইন সংশোধন ও মহাসড়কে পুলিশি হয়রানির প্রতিবাদে পরিবহন মালিক-শ্রমিক ঐক্য পরিষদের আহ্বানে মাঠে নেমেছেন পরিবহন মালিক ও শ্রমিকরা। গতকাল সোমবার ঢাকার তেজগাঁওয়ে ট্রাক-কাভার্ডভ্যান স্ট্যান্ডে গিয়ে দেখা যায় যানবাহনের দীর্ঘ সারি। মালিক-শ্রমিক ঐক্য পরিষদ জানায়, তাদের দাবি না মানা পর্যন্ত অনির্দিষ্টকালের জন্য ঢাকা বিভাগের জেলাগুলোর মধ্যে পণ্য পরিবহন বন্ধ রাখা হবে।

সম্প্রতি পাস হওয়া সড়ক পরিবহন আইনের প্রতি অনাস্থা প্রকাশ করে মালিক-শ্রমিক ঐক্য পরিষদ আরো জানায়, ১২ অক্টোবরের মধ্যে ওই আইন সংশোধন করা না হলে পরিবহন ধর্মঘটসহ আরো বৃহত্তর কর্মসূচি দেওয়া হবে। বর্তমানে ঢাকা বিভাগের ১৭টি জেলায় সব ধরনের পণ্য পরিবহন বন্ধ রয়েছে।

সম্প্রতি বেপরোয়া গাড়ি চালানোর ফলে দুর্ঘটনায় মানুষের প্রাণহানির জন্য সর্বোচ্চ পাঁচ বছরের সাজা, পাঁচ লাখ টাকা জরিমানা বা উভয় দন্ড রেখে সড়ক পরিবহন আইন-২০১৮ এর অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। তবে যদি হত্যার উদ্দেশ্যে কেউ গাড়ি চালায় এবং সেটা প্রমাণিত হয় তাহলে তা ফৌজদারি আইনের দন্ডবিধির ৩০২ ধারা অনুসারে বিচার হবে। সেক্ষেত্রে সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদন্ড হতে পারে। তদন্ত কর্মকর্তার প্রতিবেদনের সাপেক্ষে নির্ধারণ করা হবে দুর্ঘটনার প্রকৃতি কী ছিল। সেই আইনটি পরিবর্তনের দাবি জানান পরিবহন মালিক ও শ্রমিকরা। একই সঙ্গে মহাসড়কে পুলিশি হয়রানি ও চাঁদাবাজি বন্ধের ব্যাপারে সরকারকে উদ্যোগী হওয়ার জোর দাবি জানান তারা।

"