অর্থনীতিতে নোবেল জিতলেন ২ মার্কিন

প্রকাশ : ০৯ অক্টোবর ২০১৮, ০০:০০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

বিশ্ব মানুষের কল্যাণে অবদান রাখায় উইলিয়াম নর্ডহাউস আর পল রোমারকে অর্থনীতি শাস্ত্রে নোবেল পুরস্কার দেওয়া হয়েছে। বিজয়ী দুই অর্থনীতিবিদ যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিক। নর্ডহাউসকে জলবায়ু-অর্থনীতিতে ভূমিকা রাখার জন্য আর রোমারকে লোকায়ত প্রবৃদ্ধির তত্ত্বের জন্য এই পুরস্কারে ভূষিত করা হয়েছে বলে জানিয়েছে নোবেল কমিটি। বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে ১৯০১ সাল থেকে নোবেল পুরস্কার দেওয়া শুরু হয়। তবে অর্থনীতিতে নোবেল দেওয়া শুরু হয় ১৯৬৯ সাল থেকে। এবার ৫০তম বারের মতো এই পুরস্কার ঘোষণা করা হলো। নর্ডহাউস আর রোমারকে পুরস্কৃত করতে গিয়ে নোবেল কমিটির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, জলবায়ু পরিবর্তনজনিত কারণে সংঘটিত অর্থনৈতিক ক্ষতির বিষয়গুলো নিরুপণ করতে সমর্থ হয়েছেন নর্ডহাউস। আর রোমার খুঁজে বের করেছেন, কী করে অর্থনীতিবিদরা প্রবৃদ্ধির ধারাকে গতিশীল রাখতে পারেন। দুজন মিলে এমন একটি মডেল দাঁড় করিয়েছেন, যা পরিবর্তিত জলবায়ু পরিস্থিতিতে প্রবৃদ্ধি ধরে রাখার পথ বাতলে দিয়েছে। সামষ্টিক অর্থনীতিকে তারা এমন একটা পর্যায়ে নিতে সক্ষম হয়েছেন, যেখানে দাঁড়িয়ে বিশ্বের অন্যতম বড় সংকট মোকাবিলার পথ সৃষ্টি হয়েছে। উইলিয়াম ডি. নর্ডহাউস যুক্তরাষ্ট্রের ইয়েল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক। আর পল এম. রোমার অধ্যাপনা করছেন নিউইয়র্ক ইউনিভার্সিটির স্টার্ন স্কুল অব বিজনেস-এ

উল্লেখ্য, ১৮৯৫ সালের নভেম্বর মাসে আলফ্রেড নোবেল তার মোট উপার্জনের ৯৪% (৩ কোটি সুইডিশ ক্রোনার) দিয়ে তার উইলের মাধ্যমে নোবেল পুরস্কার প্রবর্তন করেন। এই বিপুল অর্থ দিয়েই শুরু হয়। পদার্থবিজ্ঞান, রসায়ন, চিকিৎসাবিজ্ঞান, সাহিত্য ও শান্তিতে নোবেল পুরস্কার প্রদান। পরে তালিকায় যুক্ত হয় অর্থনীতি। পুরস্কার ঘোষণার আগেই মৃত্যুবরণ করেছিলেন আলফ্রেড নোবেল। আইনসভার অনুমোদন শেষে তার উইল অনুযায়ী নোবেল ফাউন্ডেশন গঠিত হয়। তাদের ওপর দায়িত্ব বর্তায় আলফ্রেড নোবেলের রেখে যাওয়া অর্থের সার্বিক তত্ত্বাবধায়ন করা এবং নোবেল পুরস্কারের সার্বিক ব্যবস্থাপনা করা। আর বিজয়ী নির্বাচনের দায়িত্ব সুইডিশ একাডেমি আর নরওয়েজিয়ান নোবেল কমিটিকে ভাগ করে দেওয়া হয়।

এ পর্যন্ত অর্থনীতিতে কেবল একজন নারীই পুরস্কার পেয়েছেন। তিনি হলেন, এলিনর অসট্রম। ২০০৯ সালে তাকে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়। ২০১৭ সালে অর্থনৈতিক সিদ্ধান্ত গ্রহণে মনস্তত্ত্বের ভূমিকা নিরুপণ করে অর্থনীতিতে নোবেল জিতে নেন মার্কিন অর্থনীতিবিদ রিচার্ড থ্যালার। ২০১৬ সালে বাজার অর্থনীতির চালিকাপ্রবাহে গুরুত্বপূর্ণ অবদানের জন্য হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্রিটিশ বংশোদ্ভূত অর্থনীতিবিদ অলিভার হার্ট এবং ফিনল্যান্ডে জন্ম নেওয়া ম্যাসাচুয়েটস ইনস্টিটিউট অব টেকনোলজি (এমআইটি)-এর বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতিবিদ বেঙ্কট হোমস্ট্রমকে অর্থনীতিতে নোবেল দেওয়া হয়। তার আগের বছর অর্থাৎ ২০১৫ সালে ভোগ, দারিদ্র্য ও জনকল্যাণ সংক্রান্ত গবেষণায় অবদানের জন্য অর্থনীতিতে নোবেল পুরস্কার জিতেছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রিন্সটন বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক অ্যাঙ্গাস ডেটন।

"