নতুন মাদকের চালান

বন্দি নাজিমের নামে ফের এসেছে ‘খাট’

প্রকাশ : ১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০

নিজস্ব প্রতিবেদক

রাজধানীর কাকরাইলের আমদানি-রফতানিকারক ব্যবসায়ী মোহাম্মদ নাজিমের নামে আসা নতুন মাদক ‘খাট’-এর আরো একটি চালান ঢাকায় এসেছে। গতকাল শুক্রবার হযরত শাহজালাল বিমানবন্দর থেকে ছয়টি কার্টনে ১২০ কেজি ‘খাট’ জব্দ করেছে মাদক নিয়ন্ত্রণ অধিদফতর (ডিএনসি)। এটি বাংলাদেশে আনা নতুন এক ধরনের মাদক। ‘গ্রিন টি’ এর মতো দেখতে এটি মূলত আফ্রিকার দেশ ইথিওপিয়ান ‘গাঁজা’ বা ‘খাট’ বা নিউ সাইকোট্রপিক সাবসটেন্সেস (এনপিএস)।

ডিএনসির গোয়েন্দা শাখার অতিরিক্ত পরিচালক নজরুল ইসলাম সিকদার জানান, এই মাদক ইথিওপিয়া থেকে আমদানি করা হয়েছে। এর আগেও নাজিমের নামে আরো তিনটি চালান এসেছে। কিন্তু তিনি আগেই গ্রেফতার হয়েছেন। তার রিমান্ড শেষে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। ডিএনসি জানায়, গত ৩১ আগস্ট দেশে এই মাদকের প্রথম অস্তিত্ব মেলে। ওইদিন শাহজালাল বিমানবন্দর ও শান্তিনগর থেকে ৮৬১ কেজি ওজনের মাদকের একটি চালান জব্দ করে ডিএনসি। ঘটনায় জড়িত আমদানিকারক দুবাই ফেরত মোহাম্মদ নাজিমকে আটক করা হয়। এরপর গত ৮ সেপ্টেম্বর একই মাদকের ১৬০ কেজি ওজনের আরেকটি চালান জব্দ করে কাস্টমস হাউস ও ডিএনসি। এখন পর্যন্ত জব্দ করা সবকয়টি চালান ইথিওপিয়া থেকে জিয়াদ মোহাম্মাদ ইউসুফ নামের একজন ঢাকায় পাঠিয়েছেন।

এরই ধারাবাহিকতায় গত ৯ সেপ্টেম্বর জিপিওর বৈদেশিক পার্সেল শাখা থেকে গ্রিন টির আড়ালে পাচারের জন্য রাখা ৯৬ কার্টনে মোড়ানো ১ হাজার ৫৮৬ কেজি ওজনের ‘এনপিএস’ বা ‘খাট’ জব্দ করে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)। জব্দ হওয়া এই মাদকের বাজারমূল্য প্রায় আড়াই কোটি টাকা। এটিই এখন পর্যন্ত নতুন এই মাদকের সবচেয়ে বড় চালান। এরপর গত ১০ সেপ্টেম্বর বিমানবন্দরের কার্গো ইউনিটের ফরেন পোস্ট অফিস থেকে ২০ লাখ টাকা সমমূল্যের ১৪০ কেজি ওজনের চালানটি জব্দ করে ঢাকা কাস্টমস হাউস ও ডিএনসি।

"