এক লাখ জাল রুপির মূল্য ২৫ হাজার টাকা!

১৬ লাখ জাল রুপিসহ হোতা গ্রেফতার

প্রকাশ : ০৭ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০

নিজস্ব প্রতিবেদক
ama ami

ঢাকায় বসে ছাপানো হতো জাল রুপি (ভারতীয় মুদ্রা)। সেগুলো ছাপা হওয়ার পর বিক্রি হতো চাঁপাইনবাবগঞ্জের সীমান্তে থাকা ভারতীয় ঠিকাদারদের কাছে। তারা সেগুলো নিয়ে বিক্রি করত ভারতে। এভাবেই দীর্ঘ দিন ধরে জাল রুপির কারবার চালিয়ে আসছিল একটি চক্র।

গোপন সংবাদে গত বুধবার রাত পৌনে ২টায় রাজধানীর মোহাম্মদপুরের শ্যামলী রিং রোড এলাকার গার্ডেন স্ট্রিটের একটি বাসা থেকে জাল রুপি কারবারি চক্রের মূল হোতা শামছুল আলমকে (৪৪) গ্রেফতার করে র‌্যাব। তার কাছ থেকে ১৫ লাখ ৭৪ হাজার টাকা সমমূল্যের জাল রুপি জব্দ করা হয়েছে। র‌্যাব জানায়, শামছুল আলমের গ্রামের বাড়ি চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ এলাকায়। তার বাবা মৃত রবিউজ্জামান। শামছুল রিং রোডের গার্ডেন স্ট্রিটের ওই বাসায় দীর্ঘ দিন ধরে জাল রুপি তৈরি করে আসছেন। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তিনি তার অপরাধ কর্মকান্ডের কথা স্বীকার করেছেন।

গতকাল বৃহস্পতিবার র‌্যাব-২-এর কোম্পানি কমান্ডার মেজর মো. আলী জানান, শামছুলকে আটকের সময় তিনি জাল রুপি ছাপানোর কাজ করছিলেন। তিনি চাঁপাইনবাবঞ্জের সীমান্ত এলাকায় এক লাখ রুপির একেকটি সেট বিক্রি করতেন ২৫ থেকে ৩০ হাজার টাকায়। সেগুলোর নিয়মিত ক্রেতা ভারতীয় এক শ্রেণির ঠিকাদার। তারা সেগুলো নিয়ে ভারতের বিভিন্ন স্থানে বিক্রি করত। শামছুল এর আগে ২০১৭ সালেও একবার একই অপরাধে গ্রেফতার হয়েছিলেন। পরে জামিন পেয়ে তিনি ফের একই কাজে নেমে পড়েন। এখন তার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

"