ব্যাগে বই না থাকায় ছাত্র আটক, আতঙ্ক

প্রকাশ : ০৮ আগস্ট ২০১৮, ০০:০০

নিজস্ব প্রতিবেদক

রাজধানীর যাত্রাবাড়ীতে দনিয়া বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের সামনে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে পথচারীদের তল্লাশি করেছে পুলিশ। এ সময় ব্যাগে বই না থাকায় এক শিক্ষার্থীকে ও আচরণ ভালো নয় বলে আরেক শিক্ষার্থীকে আটক করা হয়। পরে দুজনের বাবা-মা এসে মুচলেকা দিলে তাদের ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার সকাল থেকে ঢাকা জেলা প্রশাসন কার্যালয়ের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আনোয়ারুজ্জামানের নেতৃত্বে এ তল্লাশি চালানো হয়। এ সময় ছাত্রসহ সন্দেহভাজনদের ব্যাগ ও শরীর তল্লাশি চালানো হয়। তল্লাশির মুখে পড়ায় শিক্ষার্থীদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। ক্লাসে যেতেও ভয় পাওয়ার কথা জানিয়েছেন তারা।

সরেজমিন গিয়ে দেখা গেছে, দনিয়া বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের শিক্ষার্থী মাহমুদুল আমিরের ব্যাগে কোনো বই না পেয়ে এবং ড. মাহবুবুর রহমান মোল্লা কলেজের শিক্ষার্থী তৌহিদুল ইসলামকে আচরণগত কারণে আটক করা হয়। পরে দুজনের পরিবারকে ডেকে মুচলেকা নিয়ে তাদের ছেড়ে দেওয়া হয়।

শিক্ষার্থী মাহমুদুল বলেন, কলেজ থেকে বের হয়ে নাশতা খেতে যাচ্ছিলাম। তখন আমাকে আটক করা হয়। তৌহিদুল বলেন, পিকআপে চড়ে কলেজে যাচ্ছিলাম, এ সময় শনিরআখড়ার পুলিশ গাড়ি থামিয়ে আমাকে আটক করে।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আনোয়ারুজ্জামান বলেন, নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলনের কোনো আভাস পাওয়া যায়নি। যাত্রাবাড়ী থানার ওসি রাহাদ খান বলেন, আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় তল্লাশি চালানো হয়েছে। শিক্ষার্থীরা স্বাভাবিকভাবেই কলেজে আসা-যাওয়া করছে। ব্যাগে বই না থাকলে কোনো শিক্ষার্থীকে আটক করা যায় কি না, জানতে চাইলে তিনি বলেন, না যায় না।

এদিকে শিক্ষার্থীরা অভিযোগ করে বলেন, ‘আমরা আতঙ্কে আছি। হয়তো নিরাপদ সড়কের দাবিতে মানববন্ধনে অংশগ্রহণ করছিলাম, এখন যদি চিহ্নিত করে আমাদের হয়রানি করা হয়, সেই ভয়ে কলেজে যেতে আমরা ভয় পাচ্ছি।’

 

"