গাড়ি ফিটনেস করতে এক মাস চান মালিকরা

প্রকাশ : ০৭ আগস্ট ২০১৮, ০০:০০

নিজস্ব প্রতিবেদক

সড়কে নিরাপত্তার দাবিতে স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের মুখে গাড়ির ফিটনেস ঠিক করতে উদ্যোগী হওয়া বাস মালিকরা সরকারের কাছে এক মাস সময় চেয়েছেন। গতকাল সোমবার বাংলাদেশ বাস-ট্রাক ওনার্স অ্যাসোসিয়েশনের গাবতলীর কার্যালয়ে এক সভায় এ সিদ্ধান্ত হয় বলে শ্যামলী পরিবহনের জেনারেল ম্যানেজার আলমগীর কবির জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, সভায় সিদ্ধান্ত হয়েছে যেসব বাসের ফিটনেস সমস্যা আছে সেগুলোর ফিটনেসসহ অন্য কাজ সম্পন্ন করতে সমিতির পক্ষ থেকে সরকারের কাছে এক মাস সময় চাওয়া হবে। গত ২৯ জুলাই ঢাকার বিমানবন্দর সড়কে জাবালে নূর পরিবহনের বাসের চাপায় দুই শিক্ষার্থীর মৃত্যুর পর টানা আট দিন রাজধানী অচল করে বিক্ষোভ দেখায় শিক্ষার্থীরা।

এই আন্দোলনের মধ্যে রাজপথে পুলিশের ভূমিকায় নেমে তারা চালকদের লাইসেন্স ও যানবাহনের কাগজপত্র পরীক্ষা করে। কোনো চালক বৈধ কাগজ দেখাতে না পারলে শিক্ষার্থীরা তাকে পুলিশে সোপর্দ করে মামলা নিতে বাধ্য করে। ছাত্র-ছাত্রীদের ৯ দফা দাবির মধ্যে একটি দাবি ছিল রাস্তায় ফিটনেসবিহীন গাড়ি চলাচল এবং লাইসেন্স ছাড়া চালকদের গাড়ি চালনা বন্ধ করা।

শিক্ষার্থীদের এই দাবির মুখে সরকারের তরফ থেকে বলা হয়, লাইসেন্স বা ফিটনেস সনদ ছাড়া গাড়ি চালানো এমনিতেই দন্ডনীয় অপরাধ। তারপরও শিক্ষার্থীরা আন্দোলন শুরুর পর ঢাকার সড়কে অপ্রাপ্তবয়স্ক ও লাইসেন্সবিহীন চালকদের ধরতে বিআরটিএকে বিশেষ নির্দেশনা দেওয়া হয় প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল ওইসময় শিক্ষার্থীদের দাবি মেনে নেওয়ার ঘোষণা দিয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ত্রুটিপূর্ণ গাড়ি যাতে রাস্তায় উঠতে না পারে সে জন্য টার্মিনালে চেকপোস্ট বসিয়ে দেব; যাতে গাড়িটি বের হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে প্রথমেই যেন ধরা পড়ে যে গাড়ির ফিটনেস আছে কি না, রেজিস্ট্রেশন ও চালকের লাইসেন্স সঠিক আছে কি না। তারপরও চালক গাড়িটি নিয়ে বের হলে আমরা সে ব্যবস্থাও নিচ্ছি।

এদিকে গত ৩১ জুলাই সড়ক দুর্ঘটনা রোধে যানবাহনের অভ্যন্তরীণ ও বাহ্যিক ফিটনেস জরিপে একটি জাতীয় নিরপেক্ষ বিশেষজ্ঞ কমিটি গঠন করতে সরকারকে নির্দেশ দেয় হাইকোর্ট। জনস্বার্থে করা এক রিট আবেদনের প্রাথমিক শুনানি নিয়ে বিচারপতি মইনুল ইসলাম চৌধুরী ও বিচারপতি মো. আশরাফুল কামালের হাইকোর্ট বেঞ্চ মঙ্গলবার রুলসহ ওই আদেশ দেয়।

কমপক্ষে ১৫ সদস্যের এই কমিটি করে তিন মাসের মধ্যে জরিপ প্রতিবেদন আদালতে দাখিল করতে স্বরাষ্ট্র সচিব, সড়ক পরিবহন ও সেতু সচিব এবং বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআরটিএ) চেয়ারম্যানকে এ নির্দেশ দেন আদালত। শ্যামলী পরিবহনের আলমগীর কবির জানান, গত মঙ্গলবার সকাল ৬টা থেকে ঈদুল আজহার অগ্রিম বাস টিকিট বিক্রি করার সিদ্ধান্ত হয়েছে সভায়। এ ছাড়া দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সামনে সাবধানে বাস চালানোর জন্য চালকদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এসব রাস্তায় বাসের গতিবেগ কোনো অবস্থায় ঘণ্টায় ৮০ কিলোমিটারের বেশি হতে পারবে না।

কোরবানির ঈদ সামনে রেখে রোববার সকাল থেকে দূরপাল্লার বাসের অগ্রিম টিকিট দেওয়ার দিন ধার্য করা হলেও শিক্ষার্থীদের চলমান আন্দোলনের কারণে তাতে বিঘœ ঘটছে বলে রোববার বাংলাদেশ বাস-ট্রাক ওনার্স অ্যাসোসিয়েশন জানিয়েছিল। বাংলাদেশ বাস-ট্রাক ওনার্স অ্যাসোসিয়েশনের চেয়ারম্যান সোহাগ পরিবহনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ফারুক তালুকদার সোহেল, সাধারণ সম্পাদক হানিফ পরিবহনের মালিক কফিল উদ্দিনসহ সমিতির নেতারা সোমবারের এই সভায় উপস্থিত ছিলেন।

"