ঈদুল আজহার নাটক

প্রকাশ : ১৪ আগস্ট ২০১৭, ০০:০০

হাসান সাইদুল

ঈদের আনন্দ উপভোগে সাধারণত মানুষের মধ্যে একে অপরের সঙ্গে দেখা-সাক্ষাৎ, নতুন জামা-কাপড়, মজার মজার খাবার প্রাধান্য পায়। বর্তমানে এর সঙ্গে নতুন একটি বিষয় যোগ হয়েছে। সেটি হলো, চ্যানেলগুলোতে বিশেষ অনুষ্ঠান দেখা।

দুই ঈদে নির্মাতারা দর্শককে নতুন কিছু উপহার দিতে চেষ্টা করেন। নির্মাতা-কলাকুশলীদের নানা আয়োজন থাকে বছরের দুটি ঈদকে কেন্দ্র করেই। গেল ঈদুল ফিতরের পর পরই দর্শক-ভক্তদের আনন্দ দিতে নির্মাতা-তারকারা এবারের ঈদেও একাধিক নাটক নিয়ে হাজির হচ্ছেন টিভির পর্দায়।

ঈদ আয়োজনে চ্যানেলগুলোর সবচেয়ে আকর্ষণের জায়গা হল ঈদের বিশেষ নাটকগুলো। ঈদে শত ব্যস্ততা সেরে রিমোট হাতে নিয়ে এক চ্যানেল থেকে অন্য চ্যানেলে ঘুরে ঘুরে ঈদের বিশেষ নাটকগুলো উপভোগ করার দৃশ্যও এখন প্রতিটি পরিবারেই বিদ্যমান। বরাবরের মতো এবারের ঈদ আয়োজনেও থাকছে ধারাবাহিক নাটক নির্মাণের হিড়িক। এবারের ঈদের সর্বাধিক নাটকের নায়ক হচ্ছেন মোশাররফ করিম। ঈদুল আজহাতে থাকছে মোশাররফ করিম অভিনীত তিন থেকে চারটির ধারাবাহিক। বর্তমানে এ তারকা ঈদ নাটকের শুটিং করার জন্য মালয়েশিয়ায় অবস্থান করছেন। সেখানে নির্মাতা ও অভিনেতা শামিম জামান, সাজিদ আহমেদ বাবুসহ বেশ কয়েক নির্মাতার হাফডজন নাটকের শুটিং করেই দেশে ফিরবেন। নাটকগুলোতে মোশাররফ করিমের সঙ্গে দেখা যাবে আনিকা কবির শখ ও নাবিলা ইসলাম, জুঁই করিম ও ফারুক হোসেনকে। শীর্ষ অভিনেতা জাহিদ হাসান সময় পার করছেন চরম ব্যস্ততায়। ইতোমধ্যে ঈদের জন্য ‘রমজান ভাই পাবলিক ফিগার’সহ একাধিক নাটকে শুটিং শেষ করেছেন জাহিদ। নির্মাণেও দেখা যাবে তাকে। জাহিদ হাসান বলেন, ‘রোজার ঈদ যেতে না যেতেই শুরু হয় কোরবানির ঈদের ব্যস্ততা। এখন ঈদের আগের দিন পর্যন্ত নাটকের শুটিংয়ে ব্যস্ত থাকতে হবে। নাটকের আরেক ব্যস্ত অভিনেতা সজল। ইতোমধ্যে কোরবানির ঈদের চার নাটকের শুটিং শেষ করেছেন তিনি। এর মধ্যে নাটকগুলো হচ্ছে- চয়নিকা চৌধুরীর এলোমেলো ইচ্ছেগুলো, প্রজ্ঞা নীহারিকার ‘উইল’ এবং মনির হোসেন জীবনের ‘বর্ষার শাড়ি’। চঞ্চল চৌধুরীও শুরু করছেন ঈদের নাটকের শুটিং। পিছিয়ে নেই অপূর্ব, নিলয়, আনিসুর রহমান মিলন, মীর সাব্বির, হাসান জাহাঙ্গীর, এফএস নাঈমও।

অভিনেত্রীদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি নাটকে অভিনয় করছেন ঊর্মিলা শ্রাবন্তী কর, আনিকা কবির শখ, মৌসুমী হামিদ, জাকিয়া বারি মম, মেহজাবিন, বাঁধন, অপর্ণা ঘোষ, ভাবনা, সুমাইয়া শিমুসহ অনেকেই। এ ছাড়া চিত্রনায়িকা মৌসুমী ও পূর্ণিমাকেও এবার কোরবানির ঈদের নাটকে দেখা যাবে। মৌসুমী এরই মধ্যে স্বামী ওমর সানীর সঙ্গে জুটি বেঁধে ‘এ কী খেলা’ নামে একটি নাটকে অভিনয়ও করেছেন। নাটকটি রচনা করেছেন অভিনেত্রী বিপাশা হায়াত ও পরিচালনা করেছেন আরিফ খান। ঈদে এনটিভিতে প্রচারের লক্ষ্যে নাটকটি নির্মিত হয়েছে বলে পরিচালক জানিয়েছেন। অন্যদিকে পূর্ণিমা নায়ক ইমনকে নিয়ে ‘পোর্ট্রেট’ নামে একটি নাটকের শুটিং করেছেন। নির্মাতা ও শিল্পী-কলাকুশলীদের কথা বলা যাক। ঈদের নাটকগুলো তো মূলত তাদের হাত ধরেই আসে। তাই চ্যানেল ও নির্মাতা এবং শিল্পী-কলাকুশলী একে অন্যের পরিপূরক। রোজার ঈদে দর্শক চ্যানেলগুলোতে যে ধরনের নাটক দেখেছেন এবার তার চেয়ে ভিন্নধর্মী কিছু দেখতে পাবেন, এমনটাই বলছেন এসব চ্যানেলের অনুষ্ঠান প্রধানরা।

"