দীপিকার বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা শুরু

প্রকাশ : ০৫ নভেম্বর ২০১৮, ০০:০০

বিনোদন ডেস্ক

দীর্ঘ অপেক্ষার পর বলিউড অভিনেত্রী দীপিকা পাড়ুকোনের বিয়ের আনুষ্ঠানিক উদ্যাপন শুরু হয়েছে। ভারতের বেঙ্গালুরুতে তার বাড়িতে ঐতিহ্যবাহী নন্দী পূজার মাধ্যমে গত শুক্রবার এই আয়োজন শুরু করা হয়। হবু বর-কনের জন্য দীপিকার মা উজ্জ্বলা পাড়ুকোন নিজেদের ঐতিহ্য মেনে এই পূজার আয়োজন করেন। ধর্মীয় অনুষ্ঠানের পর দীপিকার স্টাইলিস্ট শালিনা নাথানি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে দুটি স্থিরচিত্র শেয়ার করেন। এর একটির ক্যাপশনে লেখা, ‘নতুন সূচনার পথে।’ ছবিতে দেখা গেছে, সব্যসাচী মুখার্জির ডিজাইন করা কমলারঙা পোশাকে দ্যুতিময় লাজুক হবু কনের মতো লাগছে দীপিকাকে। তার কানে সোনা ও মুক্তার দুল। আরেকটি ছবিতে বন্ধুদের সঙ্গে দীপিকার মুখে দেখা যাচ্ছে প্রাণখোলা হাসি। এর ক্যাপশনে তার স্টাইলিস্ট লিখেছেন, ‘তোমাকে খুব ভালো লাগছে।’ মেকআপশিল্পী গ্যাব্রিয়েল জিওর্জিউ ছিলেন দীপিকার বিয়ের পূজায়। তিনি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে লিখেছেন, ‘এই পূজায় থাকতে পেরে আমি সম্মানিত। একটি নতুন অধ্যায়ের শুরু।’ শোনা যাচ্ছে, সব্যসাচী মুখার্জির ডিজাইন করা পোশাক পরে প্রেমিক রণবীর সিংয়ের সঙ্গে মালাবদল করবেন দীপিকা। নন্দী পূজার পর সব্যসাচী ইনস্টাগ্রামে লিখেছেন, ‘প্রিয় দীপিকা, তোমার নতুন ও রোমাঞ্চকর পথচলা মাত্র শুরু হলো। আমাদের সবার পক্ষ থেকে তোমার জন্য শুভকামনা থাকবে সব সময়।’ গত মাসে টুইটারে বিয়ের তারিখ ঘোষণা করেন রণবীর ও দীপিকা। হিন্দি ও ইংরেজি ভাষায় তারা শুভ খবর দেন। আগামী ১৪ ও ১৫ নভেম্বর ইতালির লেক কোমোতে তাদের বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হওয়ার কথা। ছয় বছর ধরে তাদের মধ্যে মনের আদান-প্রদান চলছে। এবার সফল সমাপ্তির পালা।

মিড-ডে পত্রিকার প্রতিবেদন অনুযায়ী, রণবীর-দীপিকার চার দিনব্যাপী বিয়ের অনুষ্ঠান শুরু হবে আগামী ১৩ নভেম্বর। ওইদিন থাকছে সংগীত। এর পরদিন সাতপাকে বাঁধা পড়বেন তারা। ১৫ নভেম্বর আবারও বিয়ে করবেন দুজনে। দক্ষিণ ভারতীয় ও সিন্ধি-পাঞ্জাবি রীতিতে দুই দিন বিয়ে হবে।

 

"