আট হলে ‘মেঘকন্যা’

প্রকাশ : ১৩ অক্টোবর ২০১৮, ০০:০০

বিনোদন প্রতিবেদক

মুক্তি নিয়ে সংশয় থাকা সত্ত্বেও শেষ পর্যন্ত গতকাল শুক্রবার আট হলে মুক্তি পেয়েছে ‘মেঘকন্যা’ ছবিটি। এগুলোর মধ্যে দুটি হল ঢাকায় আর বাকি হলগুলো রাজধানীর বাইরে। এর আগে অন্য ছবির মুক্তি ঠেকাতে রিট করায় ও মুক্তির জন্য কোনো হল মালিক বিশেষ আগ্রহ না দেখানোর কারণে আলোচনায় আসে ‘মেঘকন্যা’ ছবির প্রযোজক জাহাঙ্গীর কবির। আগে থেকে ফরিদপুরের বনলতা সিনেমা হল থেকেই শুধু বুকিং ছিল, এ ছাড়া অন্য কোনো হল মালিক ছবিটি বুকিং দেননি। পরে বলতে

গেলে এক রাতের ভেতরেই

সাতটি হলের বুকিং মেলে

ছবিটির ভাগ্যে।

প্রযোজক জাহাঙ্গীর কবির বলেন, ‘অনেক সংগ্রাম করে আমি ছবিটি মুক্তি দিয়েছি। ঢাকার দুটি সিনেমা হলসহ মোট আটটি সিনেমা হলে আমরা ছবিটি মুক্তি দিয়েছি। আশা করি, দর্শক ছবিটি গ্রহণ করবেন।’

ছবির কাহিনিতে দেখা যাবে, নিজের সন্তানের পরিচয় দিতে পারছেন না মায়া (নিঝুম রুবিনা)। তিনি কোনোদিন মিথ্যা কথা বলেন না। সন্তানের বাবার পরিচয় দিতে পারছেন না তিনি। কারণ, ফাহিম (ফেরদৌস) মেয়েকে গর্ভে রেখেই দেশের বাইরে চলে যান। এরপর থেকে আর কোনো যোগাযোগ করেন না। মেয়েকে বাধ্য হয়ে আশ্রমে দিয়ে দেন মা। আশ্রমে মায়া মাঝেমধ্যেই সন্তানকে

আদর করতে আসেন। এ

ধরনের টানাপড়েনের মধ্য

দিয়ে এগোতে থাকে

গল্পের কাহিনি।

মিনহাজ অভি পরিচালিত এই ছবিতে জুটি বেঁধে কাজ করেছেন ফেরদৌস ও নিঝুম রুবিনা। ছবিটি প্রযোজনা করেছে জয়া মিডিয়া প্রডাকশন। ছবিটির চিত্রনাট্য ও কাহিনি লিখেছেন পরিচালক নিজেই। সংলাপের কাজ করেছেন গাজী রাকায়েত। ছবিটিতে অন্যান্য চরিত্রে অভিনয় করেছেন মাহফুজ, শম্পা, রেবেকা, সাবরিনা, হৃদা ও সিক্তা। এ ছাড়া একটি গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে অভিনয় করছেন

অভিনেত্রী সুচরিতা।

 

"