টুইঙ্কেলের আক্ষেপ!

প্রকাশ : ১০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০

বিনোদন ডেস্ক

অনেক পরিচয়ে পরিচিত তিনি। স্বামী বলিউড অভিনেতা অক্ষয় কুমার, মা আরেক জনপ্রিয় অভিনেত্রী ডিম্পল কাপাডিয়া, বাবা বলিউড চলচ্চিত্রের প্রথম সুপার স্টার রাজেস খান্না। আর তিনি নিজেও ছিলেন একজন অভিনেত্রী। যদিও এ নিয়ে রয়েছে তার অনেক আক্ষেপ। কারণ তিনি নিজেই যখন বলেন, ‘আমি একটি হিট সিনেমাও উপহার দিতে পারিনি। আমি মনে করি, আমার সব সিনেমা নিষিদ্ধ হওয়া উচিত, যাতে এসব সিনেমা কেউ আর দেখতে না পারে।’ এতক্ষণে নিশ্চয়ই অনেকে বুঝে গেছেন আলোচিত ব্যক্তিটি কে। হ্যাঁ, তিনি হচ্ছেন অভিনেত্রী টুইঙ্কেল খান্না।

বর্তমানে অভিনয় থেকে অনেক দূরে তিনি। ছবি প্রযোজনা ও লেখালেখি নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করছেন তিনি। গত শুক্রবার মুম্বাইয়ে টুইঙ্কেল খান্নার লেখা ‘দ্য লিজেন্ড অব লক্ষ্মী প্রসাদ’ বইয়ের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এটি তার লেখা তৃতীয় গ্রন্থ। আর বইটির মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে এসব চলচ্চিত্র নিয়ে নিজের আক্ষেপের কথা বলেন তিনি।

এ সময় অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন স্বামী অক্ষয় কুমার, মা ডিম্পল কাপাডিয়া, ছেলে আরাভ ভাটিয়া ও মেয়ে নিতারা। এ ছাড়া হাজির ছিলেন করণ জোহর, রণবীর সিং, সোনম কাপুর, ববি দেওলসহ বলিউডের অনেক তারকা।

১৯৯৫ সালে ‘বারসাত’ সিনেমার মাধ্যমে বলিউডে অভিষেক ঘটে অভিনেত্রী টুইঙ্কেল খান্নার। তারপর তার অভিনীত প্রায় সবগুলো সিনেমা ব্যবসায়ীকভাবে ব্যর্থ হয়। ২০০১ সালে অভিনেতা অক্ষয় কুমারের সঙ্গে বিয়ের পর অভিনয় থেকে দূরে সরে যান এই অভিনেত্রী। অভিনেত্রী হিসেবে ব্যর্থ হলেও লেখালেখির মাধ্যমে নতুন করে আলোচনায় আসেন টুইঙ্কেল খান্না। তার লেখা প্রথম বই ‘মিসেস ফানি বোনস’ এক লাখের বেশি কপি বিক্রি হয়। ২০১৫ সালে ভারতে আর কোনো নারী লেখকের বই এত পরিমাণে বিক্রি হয়নি।

"