বৃষ্টির গানে সাড়া পাচ্ছেন কুমার বিশ্বজিৎ

প্রকাশ : ২৮ আগস্ট ২০১৮, ০০:০০

বিনোদন প্রতিবেদক

কুমার বিশ্বজিতের কণ্ঠে সর্বশেষ শ্রোতারা যে গানটি শুনে মুগ্ধ হয়েছিলেন, তা ছিল ‘আমি যেন কেউ তোর হই’। হাসান নাজমুলের কথায় ও আহমেদ হুমায়ুনের সুর ও সংগীতে এই গানটির জন্য কুমার বিশ্বজিৎ সর্বশেষ প্রশংসিত হয়েছেন, সাড়া পেয়েছেন। ‘ধ্রুব মিউজিক স্টেশন’-এ প্রকাশিত এই গানটির জন্য প্রতিনিয়তই সাড়া পাচ্ছেন কুমার বিশ্বজিৎ। তবে ঈদের আগে গত ১৬ আগস্ট বৃষ্টিস্নাত সন্ধ্যায় সিডি চয়েজের ইউটিউব চ্যানেলে প্রকাশিত হয় চিরসবুজ কণ্ঠশিল্পী কুমার বিশ্বজিতের বৃষ্টির গান ‘বৃষ্টি এলেই আসো তুমি’ গানটি। ‘আমি যেন কেউ তোর হই’ গানের পর এটাই ছিল কুমার বিশ্বজিতের ভক্ত-দর্শকের জন্য তার গাওয়া নতুন গান। যার মিউজিক ভিডিও নির্মাণে বেশ আয়োজন করা হয়েছিল বলে জানান কুমার বিশ্বজিৎ। গানটি ইউটিউবে প্রকাশের পর থেকেই বেশ সাড়া পাচ্ছেন বলে জানান তিনি। কুমার বিশ্বজিৎ বলেন, ‘একজন সংগীতশিল্পী হিসেবে প্রতিনিয়তই আমি আমার গান নিয়ে এক্সপেরিম্যান্ট করি। গানের কথা, সুর সংগীতায়োজন নিয়ে আমি ভীষণ চিন্তা করি। শিল্পী হিসেবে আমি যতক্ষণ পর্যন্ত সন্তুষ্ট না হই, ততক্ষণ পর্যন্ত তা শ্রোতা-দর্শকের কানে পৌঁছানোর চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিই না। থাকতে পারে বছরজুড়ে আমার গানের প্রকাশের সংখ্যা কম। কিন্তু আমি আমার গানের ব্যাপারে ভীষণ কোয়ালিটি মেইনটেইন করার চেষ্টা করি। একটি ভালো গান একজন শিল্পীর শ্রোতা-দর্শকের কাছে যুগের পর যুগ বেঁচে থাকার অবলম্বন। তাই গান করার ক্ষেত্রে একজন শিল্পীকে সবসময়ই সচেতন থাকতে হয়। এই বৃষ্টির গানটিও আমার তেমনই ভালোলাগার একটি গান।’ গানটি লিখেছেন রবিউল ইসলাম জীবন এবং সুর সংগীতায়োজন করেছেন অটমুনাল মুন। মিউজিক ভিডিওটি নির্মাণ করেছেন সৈকত নাসির। সিডি চয়েজের কর্ণধার জহিরুল ইসলাম সোহেল বলেন, ‘কুমার বিশ্বজিৎ দাদা একজন কিংবদন্তি সংগীতশিল্পী। সংগীতের জন্য নিবেদিত একজন ব্যক্তিত্ব। তার গানটির জন্য আমাদের চ্যানেলে ভীষণ সাড়া পািচ্ছ। দর্শক-শ্রোতাদের প্রতি সব সময়ই আমরা কৃতজ্ঞ। দাদার প্রতি আন্তরিকভাবে কৃতজ্ঞ আমরা।’

"