প্রধানমন্ত্রী চলচ্চিত্রশিল্পীদের সর্বোচ্চ মূল্যায়ন করেন

ববিতা

প্রকাশ : ১০ জুলাই ২০১৮, ০০:০০

বিনোদন প্রতিবেদক

গত রোববার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছ থেকে ‘আজীবন সম্মাননা’ গ্রহণ করেন জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা ববিতা। বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ওইদিন সন্ধ্যায় প্রধানমন্ত্রী ববিতার হাতে এই সম্মাননা তুলে দেন। সম্মাননা শেষে বেশ কিছুটা সময় ববিতা প্রধানমন্ত্রীর পাশে বসে চলচ্চিত্র প্রসঙ্গে নানা কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে আলাপ করে ববিতা অনুধাবন করলেন, তিনি চলচ্চিত্রকে অনেক ভালোবাসেন, চলচ্চিত্রশিল্পীদের তিনি সর্বোচ্চ মূল্যায়ন করার চেষ্টা করেন।

এ বিষয়ে ববিতা বলেন, আজীবন সম্মাননা পাওয়ার পর আমি এবং ফারুক ভাই প্রধানমন্ত্রীর দুপাশে বসেছিলাম বেশ কিছুটা সময়। সে সময় তার সঙ্গে চলচ্চিত্রের নানা বিষয় নিয়ে কথা হয়েছে। তার সঙ্গে কথা বলে এটা অনুধাবন করতে পেরেছি, আমাদের চলচ্চিত্রকে মোটকথা চলচ্চিত্র পরিবারকে তিনি অনেক ভালোবাসেন। শুধু তা-ই নয়, চলচ্চিত্রশিল্পীদের যাকে যেভাবে মূল্যায়ন করা উচিত, তিনি তাই করেন, শিল্পীদের সর্বোচ্চ মূল্যায়ন করার চেষ্টা করেন। কারণ মনেপ্রাণে তিনি আমাদের চলচ্চিত্রকে ভালোবাসেন। আর তাই দেশের বাইরে যখন তিনি যান তখন তিনি বিমানে বসে দীর্ঘ সময় ধরে বাংলাদেশের সিনেমাই উপভোগ করেন। ববিতা চলচ্চিত্রে সারা জীবনের অবদান হিসেবে পেয়েছেন আজীবন সম্মাননা।

সম্মাননা পাওয়ার পর উচ্ছ্বসিত ববিতা বলেন, ‘গতকাল সোমবার সকাল থেকেই নানাভাবে দেশ-বিদেশের শুভেচ্ছা পাচ্ছি, অভিনন্দন পাচ্ছি। এ যে কত বড় প্রাপ্তি আমি তা ভাষায় প্রকাশ করতে পারব না। কারণ এর আগে আমি চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী হিসেবে বহুবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছি। কিন্তু আমার অভিনয় জীবনের অবদানের চূড়ান্ত স্বীকৃতি হিসেবে পেলাম আজীবন সম্মাননা।

তিনি আরো বলেন, দেশের বাইরে থেকেও অনেক সম্মাননা পেয়েছি। কিন্তু দেশের মধ্যে সর্বোচ্চ স্বীকৃতি পাওয়া সবচেয়ে সুখের, সবচেয়ে আনন্দের। আমার এই প্রাপ্তি আমার ভক্ত-দর্শককে উৎসর্গ করলাম। সবাই আমার জন্য দোয়া করবেন আল্লাহ যেন আমাকে সুস্থ রাখেন, ভালো রাখেন। যদি আবার চলচ্চিত্রে অভিনয় করতে হয়, তবে আমার সঙ্গে মানানসই চরিত্রে অভিনয় করেই যেন দর্শকের সামনে আসতে পারি।

"