ভোটারদের উপস্থিতি ছিল অবিশ্বাস্য : কাদের

প্রকাশ : ৩১ ডিসেম্বর ২০১৮, ০০:০০

ফেনী প্রতিনিধি

দেশের মানুষ কখনোই সাম্প্রদায়িক রাজনীতিকে গ্রহণ করেনি। সাম্প্রদায়িক রাজনীতির সঙ্গে ঐক্য করার কারণেই বিএনপি ও ঐক্যফ্রন্টের এই পতন হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। রোববার সন্ধ্যায় ফেনীর মহিপালে প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলাম স্বপন মিয়াজীর ব্যক্তিগত কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সুনিশ্চিত বিজয়ের পথে এগিয়ে যাচ্ছে মহাজোট। ভোটের আগে মহাজোটের পক্ষে যে গণজোয়ার তৈরি হয়েছিল, এ ভোটে সে জোয়ারের প্রতিফলন হয়েছে। ভোট কেন্দ্রগুলোতে অচিন্তনীয়, অবিশ্বাস্য উপস্থিতি ছিল ভোটারদের। এর মধ্যে নারী ও তরুণদের উপস্থিতি ছিল লক্ষণীয়।

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের ২২০ আসনে অনিয়ম ও কারচুপির অভিযোগ প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, এ ধরনের বক্তব্য অনাকাক্সিক্ষত ও অনভিপ্রেত। মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন বর্জন তাদের দলীয় সিদ্ধান্ত নয়। ৫১ জন কেন দলীয় সিদ্ধান্ত না মেনে বর্জন করল তা আমার জানা নেই।

তিনি আরো বলেন, শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এবারে মুক্তিযুদ্ধের সপক্ষের শক্তির পক্ষে বিস্ফোরণ হয়েছে। এর মূলে রয়েছে বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার সততা, দক্ষতা, ঐক্য ও বিগত বছরগুলোর উন্নয়ন। আমরা একটি ঐতিহাসিক বিজয় অর্জন করতে যাচ্ছি, বিজয় উৎসব বা মিছিল না করে নিজেদের সংহত রাখতে হবে। উল্লসিত না হয়ে ধৈর্য ধরে থাকতে হবে।

নির্বাচনে সহিংসতায় সারা দেশে প্রাণহানির ব্যাপারে ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপি পরাজয় নিশ্চিত দেখে এসব সহিংসতার পথ বেছে নিয়েছে। তাদের নেতাদের ফাঁস হওয়া ফোনালাপ তার প্রমাণ। এ ব্যাপারে ফল ঘোষণার পর কেন্দ্র থেকে আনুষ্ঠানিক ব্রিফিং আমাদের দল থেকে দেয়া হবে।

এ সময় ফেনী-২ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী ও ফেনী জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নিজাম উদ্দিন হাজারী, ফেনী ইউনিভার্সিটির ট্রাস্টি বোর্ডের চেয়ারম্যান আলাউদ্দিন আহমেদ চৌধুরী নাসিম, ফেনী পৌরসভার প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলাম স্বপন মিয়াজী, জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য শেখ আবদুল্লাহ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

"