ইউজিসির সমন্বিত নীতিমালা প্রত্যাখ্যানের হুশিয়ারি ইবি শিক্ষক সমিতির

প্রকাশ : ১০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:০০

ইবি প্রতিনিধি

বাংলাদেশ বিশ^বিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশিন (ইউজিসি) কর্তৃক বিশ^বিদ্যালয়ে শিক্ষক নিয়োগ ও পদোন্নতির ক্ষেত্রে সমন্বিত খসড়া যে নীতিমালা প্রণীত হয়েছে তা প্রত্যাখ্যানের হুশিয়ারি দিয়েছে ইসলামী বিশ^বিদ্যালয় (ইবি) শিক্ষক সমিতি।

স্বায়ত্তশাসিত বিশ^বিদ্যালয়গুলোর বৈশিষ্ট্যের সঙ্গে এই নীতিমালা অসংগতিপূর্ণ হলে তা প্রত্যাখ্যান করবেন জানিয়েছেন তারা। ৩১ আগস্ট শনিবার দুপুরে সমিতির কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মলনে এসব কথা বলেন শিক্ষক সমিতির নেতারা। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. আলমগীর হোসেন ভূঁইয়া বলেন, ‘স্বায়ত্তশাসিত বিশ^বিদ্যালয়গুলোতে শিক্ষক নিয়োগ ও পদোন্নতির ক্ষেত্রে ইউজিসি অভিন্ন নীতিমালা প্রণয়ন করতে যাচ্ছে। ফলে বিশ^বিদ্যালয়ের শিক্ষকরা আজ চরম উৎকণ্ঠার মধ্যে আছে। নীতিমালা নিয়ে ইবি শিক্ষক সমিতি গত ২৮ আগস্ট সাধারণ সভা করেছে।’ এ সময় তিনি সমিতির সাধারণ সভায় গৃহীত সিদ্ধান্তগুলোর বিষয়ে বলেন, ‘প্রণীত নীতিমালা স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানের বৈশিষ্ট্যের সঙ্গে অসংগতিপূর্ণ হলে সর্বসম্মতিক্রমে তা প্রত্যাখ্যান করবে ইবি শিক্ষক সমিতি। সমন্বিত খসড়া নীতিমালা নিয়ে বাংলাদেশ বিশ^বিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি ফেডারেশনকে সভা আহ্বানের দাবি জানানো হবে।’

এ সময় তিনি আরো বলেন, ‘নীতিমালা সম্পর্কে বিভিন্ন বিশ^বিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সঙ্গে সমন্বয় করে ঐক্যবদ্ধ প্রদক্ষেপ গ্রহণ ও খসড়া নীতিমালার অসংগতিসমূহ চিহ্নিত করে তা দূরকরণে বিশ^বিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশন ও শিক্ষা মন্ত্রণলায় বরারবর পত্র প্রেরণ করা হবে। সংবাদ সম্মেলনে ইবি শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক কামাল ড. উদ্দিন বলেন, ‘সমন্বিত নীতিমালা কার্যকর হলে বিশ^বিদ্যালয়ের স্বায়ত্বশাসন চরমভাবে বিঘিœত হবে। আমাদের দাবির মধ্য দিয়ে আমরা সারা দেশের বিশ^বিদ্যালয় ও শিক্ষক সমিতি ফেডারেশনকে জাগ্রত করতে চাচ্ছি।’

এ সময় বিশ^বিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. জাহাঙ্গীর হোসেন, সদস্য অধ্যাপক মাহবুবুল আরফিন, অধ্যাপক মেহের আলী, অধ্যাপক আনোয়ার হোসেন, সহকারী অধ্যাপক জয়শ্রী সেনসহ সমিতির অন্যান্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

 

"