ডিআইইউ ও প্রগতি লাইফ ইন্স্যুরেন্স লিমিটেডের মধ্যে চুক্তি

প্রকাশ : ০৬ ডিসেম্বর ২০১৮, ০০:০০

অনলাইন ডেস্ক

ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির (ডিআইইউ) সব শিক্ষার্থীকে নিরাপদ ও ঝুঁকিমুক্ত উচ্চশিক্ষা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে শিক্ষার্থীদের পাশাপাশি এবার অভিভাবকদের জন্যও গ্রুপ লাইফ ইন্স্যুরেন্সের আওতায় স্বাভাবিক এবং দুর্ঘটনাজনিত স্থায়ী অক্ষমতার বীমা সুবিধাপ্রাপ্তির একটি প্রকল্প বাস্তবায়নের লক্ষ্যে ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি (ডিআইইউ) এবং প্রগতি লাইফ ইন্স্যুরেন্স লিমিটেডের মধ্যে একটি সমঝোতা চুক্তি গত ২২ নভেম্বর বৃহস্পতিবার ধানমন্ডির চিলিস একটি অভিজাত হোটেলে স্বাক্ষরিত হয়। ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ট্রেজারার মো. হামিদুল হক খান এবং প্রগতি লাইফ ইন্স্যুরেন্স লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ জালালুল আজিম তাদের নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন।

চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির উপাচার্য অধ্যাপক ড. ইউসুফ এম ইসলাম, উপ-উপাচার্য প্রফেসর ড. এস এম মাহাবুব-উল হক মজুমদার, পরিচালক (অর্থ ও হিসাব) মমিনুল হক মজুমদার, পরিচালক (প্রশাসন) মোহাম্মদ ইমরান হোসেন, পরিচালক (আন্তর্জাতিক) প্রফেসর ড. মো. ফখরে হোসেন, লাইব্রেরিয়ান মিলন খান, পরিচালক (স্টুডেন্ট অ্যাফেয়ার্স) সৈয়দ মিজানুর রহমান, যুগ্ম পরিচালক (হিসাব ও অর্থ), যুগ্ম পরিচালক (পরিকল্পনা ও উন্নয়ন) এবং যুগ্ম পরিচালক (আইটি) নাদির বিন আলীসহ অন্য ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। প্রগতি লাইফ ইন্স্যুরেন্সের পক্ষে চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. রফিকুল ইসলাম, সিনিয়র এজিএম মো. সৈয়দ হাসানসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা। এ চুক্তির ফলে ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির (ডিআইইউ) সব শিক্ষার্থীর অভিভাবকদের প্রগতি লাইফ ইন্স্যুরেন্স লিমিটেডের গ্রুপ বীমার আওতায় আনা হবে এবং এর ফলে অভিভাবকের অকালমৃত্যু বা দুর্ঘটনার কারণে শিক্ষার্থীদের শিক্ষাজীবন বিঘিœত হবে না। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি।

 

"