শিক্ষার্থীদের উৎকর্ষে সিআইইউর নানা পরিকল্পনা

প্রকাশ : ২৪ অক্টোবর ২০১৮, ০০:০০

অনলাইন ডেস্ক

উচ্চশিক্ষায় গুণগত পরিবর্তন ও কোর্স-কারিকুলামে নিত্য নতুন বিষয় অন্তর্ভুক্ত করার মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের আরো চৌকষ ও কর্মমুখী হিসেবে গড়ে তুলতে চিটাগাং ইনডিপেন্ডেন্ট ইউনিভার্সিটি (সিআইইউ)। এ কারণেই নানামুখী পরিকল্পনা নিয়ে কাজ করছে বলে জানিয়েছেন বোর্ড অব ট্রাস্টির সদস্যরা।

আন্তর্জাতিকমানের সব ধরনের সুযোগ সুবিধা নিশ্চিত করে শিগগিরই স্থায়ী ক্যাম্পাসে যাচ্ছে এই বিশ্ববিদ্যালয়। এতে করে ছাত্রছাত্রীরা প্রতিযোগিতার বাজারে একধাপ এগিয়ে থাকবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন বোর্ড অব ট্রাস্টিজের সদস্যরা। সম্প্রতি নগরীর জামালখানস্থ সিআইইউ ক্যাম্পাসে অনুষ্ঠিত বোর্ড অব ট্রাস্টির সভায় এসব কথা বলেন সদস্যরা। এতে সভাপতিত্ব করেন বোর্ড অব ট্রাস্টির চেয়ারম্যান তৌহিদ সামাদ।

সভায় এডুকেশন, সায়েন্স, টেকনোলজি অ্যান্ড কালচারাল ডেভেলপমেন্ট ট্রাস্টের (ইএসটিসিডিটির) চেয়ারম্যান আবদুল হাই সরকার বলেন, চট্টগ্রাম থেকে সারাদেশের উচ্চশিক্ষায় নজর কেড়েছে সিআইইউ। পড়ালেখার পাশাপাশি এই বিশ্ববিদ্যালয়ের ছেলে মেয়েদের সৃষ্টিশীল সাফল্য সত্যিই প্রশংসনীয়। এই ধারা অব্যাহত রাখতে হবে।

উপাচার্য অধ্যাপক ড. মাহফুজুল হক চৌধুরী বলেন, বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় নিয়ে সাধারণ মানুষের প্রচলিত ধারণা পাল্টে দিয়েছে এই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। এখানকার পাঠদান পদ্ধতি, সময়োপযোগী সিলেবাস আর পড়ালেখার পরিবেশ নিয়ে সন্তুষ্ট ইউজিসি।

সিআইইউর স্থায়ী ক্যাম্পাসে অ্যাকাডেমিক কার্যক্রম শুরু হলে চট্টগ্রামের সচেতন শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা উচ্চশিক্ষায় ভিন্ন কিছুর স্বাদ পাবেন বলে উল্লেখ করেন তিনি। বোর্ড অব ট্রাস্টির চেয়ারম্যান তৌহিদ সামাদ বলেন, সিআইইউর স্থায়ী ক্যাম্পাস নিয়ে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের রয়েছে হাজারও প্রত্যাশা। শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ নিশ্চিত করা, ছাত্র-ছাত্রীদের ভেতর নিত্য-নতুন জ্ঞান ও তাদের দক্ষতা বৃদ্ধি করতে আমরা বদ্ধপরিকর। প্রতিটি শিক্ষার্থীকে দক্ষ মানবসম্পদে পরিণত করতে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানটি নিরলসভাবে কাজ করে যাবে বলে এই সময় বক্তব্যে জানান তিনি। সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন বোর্ড অব ট্রাস্টির সদস্য ড. এ. মজিদ খান, হেফাজাতুর রহমান, প্রকৌশলী আলী আহমেদ, আমির হুমায়ুন মাহমুদ চৌধুরী, সৈয়দ মাহমুদুল হক, লুৎফে এম আইয়ুব, সাফিয়া গাজী রহমান, দিলরুবা আহমেদ, মো. আমিন হেলালী, মোহাম্মদ খালেদ মাহমুদ, ইসমাইল দোভাষ, মির্জা সালমান ইস্পাহানি, আমিনুর রেজা খান প্রমুখ। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি।

"