আইডিয়াল ল’ কলেজে নবীনবরণে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রত্যেক পেশার সঙ্গে আইন সরাসরি জড়িত

প্রকাশ : ১৬ জুলাই ২০১৮, ০০:০০

অনলাইন ডেস্ক

‘মাদককে না বলুন’Ñউপপাদ্যকে সামনে রেখে ৬ জুলাই শুক্রবার ঢাকার ফার্মগেটের আবদুল হালিম পাটওয়ারী ফাউন্ডেশন কর্তৃক প্রতিষ্ঠিত ও পরিচালিত আইডিয়াল ল’ কলেজে ২০১৬ শিক্ষাবর্ষের কৃতী শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা এবং ২০১৮-১৯ সেশনের শিক্ষার্থীদের ওরিয়েন্টেশন ও নবীনবরণ অনুষ্ঠিত হয়।

কলেজ অডিটোরিয়ামে আয়োজিত আইডিয়াল ল’ কলেজের প্রতিষ্ঠাতা ও আবদুল হালিম পাটওয়ারী ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান ড. এম এ হালিম পাটওয়ারী সভাপতিত্বে সংবর্ধনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন কলেজের গভর্নিং বডির সভাপতি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান (কামাল)। বিশেষ অতিথি ছিলেন মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের মহাপরিচালক মো. জামাল উদ্দীন আহমেদ ও গভর্নিং বডির সদস্য অধ্যাপক মো. আবদুর রশিদ। অন্যদের মধ্যে কলেজের অধ্যক্ষ ড. জামাল উদ্দীন আহমেদ, ইউসিসি গ্রুপের পরিচালক মো. কামাল উদ্দিন পাটওয়ারী, অ্যাডভোকেট মো. আলমগীর হোসেন পাটওয়ারী উপস্থিত ছিলেন। এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন কলেজের নবাগত শিক্ষার্থী, সংবর্ধিত শিক্ষার্থী ও আমন্ত্রিত অতিথিরা। অনুষ্ঠানে ফুল ও ক্রেস্ট দিয়ে সংবর্ধিত করা হয়।

প্রধান অতিথি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান তার বক্তৃতায় বলেন, প্রতিটি পেশার সঙ্গে আইন বিষয়টি সরাসরি জড়িত। এ কলেজটি আইনের সঠিক দিকনির্দেশনামূলক শিক্ষা দিতে সচেষ্ট থাকবে বলে আমি বিশ্বাস করি। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আরো বলেন, আইডিয়াল ল’ কলেজ আইন শিক্ষার্থীদের জন্য যে ব্যতিক্রমধর্মী ও সহযোগী পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে, তাতে এ কলেজের প্রতিটি আইন শিক্ষার্থী শুধু সনদপত্রের জন্য নয় বরং নিজেকে প্রকৃত অর্থে একজন আইনজ্ঞ হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করতে পারবে বলে আমার দৃঢ় বিশ্বাস। এ কলেজ জাতীয় বিশ্ববিদ্যলয়ের ফলাফলে চমকপ্রদ সাফল্য অর্জন করায় সংশ্লিষ্টদের প্রশংসা করেন।

মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের মহাপরিচালক মো. জামাল উদ্দীন আহমেদ বলেন, শিগগিরই বাংলাদেশকে মাদকমুক্ত করতে পারব বলে বিশ্বাস করি। মাদকের বিরুদ্ধে যে অভিযান হচ্ছে তা অব্যাহত থাকবে। যে পর্যন্ত মাদক নিয়ন্ত্রণে না আনতে পারি সে পর্যন্ত অভিযান চলবে।

সভাপতির বক্তব্যে ড. এম এ হালিম পাটওয়ারী বলেন, অত্যন্ত মনোরম ও সুন্দর পরিবেশে ছাত্রছাত্রীরা এখানে আইন অধ্যয়নের সুযোগ লাভ করছে, যা অন্যান্য ল’ কলেজের চেয়ে ব্যতিক্রমধর্মী বলে প্রতীয়মান। দেশকে বাঁচাতে হলে, সুনাগরিক হিসেবে বাঁচতে হলে, নিজের অধিকার প্রতিষ্ঠিত করতে হলে তথা ‘রুল অব ল’ প্রতিষ্ঠিত করতে হলে আইন শিক্ষার বিকল্প নেই। এ উদ্দেশ্য সামনে রেখেই আইডিয়াল ল’ কলেজ তার অভীষ্ট লক্ষ্যের দিকে এগিয়ে চলেছে। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি।

"