প্রত্যাহার হচ্ছে কাশ্মীরে পর্যটক-নির্দেশনা

প্রকাশ : ০৯ অক্টোবর ২০১৯, ০০:০০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

ভারত শাসিত কাশ্মীর ছেড়ে যেতে পর্যটকদের ওপর নির্দেশনা জারির ৬৮ দিন পর তা প্রত্যাহার করে নিতে যাচ্ছে রাজ্য সরকার। এই বিষয়ে আদেশ জারি করতে গত সোমবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে নির্দেশনা দিয়েছেন কাশ্মীরের গভর্নর সত্য পাল মালিক। আগামী ১০ অক্টোবর থেকে নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন কাশ্মীরের রাজ্য সরকারের এক মুখপাত্র। ভারতের সংবাদমাধ্যম দ্য হিন্দু জানিয়েছে, ব্লক ডেভেলপমেন্ট কাউন্সিল (বিডিসি) নির্বাচন সামনে রেখে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হচ্ছে।

গত ৫ আগস্ট স্বায়ত্তশাসন বাতিল করে কাশ্মীরকে দুই ভাগ করে দেয় দিল্লি। এই সিদ্ধান্ত ঘোষণার আগে ২ আগস্ট কাশ্মীরে অবস্থানরত সব পর্যটককে তাদের সফর সংক্ষিপ্ত করে দ্রুত উপত্যকা ছেড়ে যাওয়ার নির্দেশনা জারি করে রাজ্য সরকার। ওই সময়ে দাবি করা হয় সন্ত্রাসী হামলার বিষয়ে গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। পরে কাশ্মীরের নাগরিকদের ওপর বিভিন্ন বিধিনিষেধ আরোপের পাশাপাশি অতিরিক্ত সেনা মোতায়েনের পর স্বায়ত্তশাসন বাতিলের ঘোষণা দেয় দিল্লি। আটক করা হয় হাজার হাজার রাজনৈতিক নেতাকে। এরপর প্রায় দুই মাস অতিবাহিত হলেও কাশ্মীরে ফেরেনি স্বাভাবিক অবস্থা।

গত সোমবার আসন্ন বিডিসি নির্বাচন উপলক্ষে একটি পর্যালোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন কাশ্মীরের গভর্নর সত্য পাল মালিক। তিনি জানান, সুষ্ঠুভাবে নির্বাচন পরিচালনা করতে কর্মকর্তাদের মোবাইল ফোন দেওয়া হবে। বৈঠকের বিষয়ে কাশ্মীর সরকারের এক মুখপাত্র জানান, আটক রাজনৈতিক নেতাদের নির্বাচনের সময় দলীয় কর্মীদের সঙ্গে সাক্ষাতের অনুমতি দেওয়া হবে। যাতে করে তারা প্রার্থী মনোনয়নে ভূমিকা রাখতে পারেন।

গত সোমবারের বৈঠকে গভর্নর সত্য পাল মালিককে জানানো হয় জম্মু-কাশ্মীরের বেশির ভাগ অংশের নিরাপত্তা সংক্রান্ত বিধিনিষেধ প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়েছে। কাশ্মীর সরকারের মুখপাত্র জানান, গভর্নর কাশ্মীরে স্বাভাবিক জীবনযাত্রা ফিরিয়ে আনার ওপরে জোর দিয়েছেন। গত সোমবারের বৈঠকে মাধ্যমিক স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয় খুলে দেওয়াসহ গণপরিবহন চালুরও সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

 

"