সৌদিতে হামলা বন্ধের ঘোষণা হুথিদের

প্রকাশ : ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:০০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

সৌদি আরবকে লক্ষ্য করে ক্ষেপণাস্ত্র ও ড্রোন হামলা বন্ধ করা হবে বলে জানিয়েছেন ইয়েমেনের হুথি বিদ্রোহী আন্দোলনের এক কর্মকর্তা। সতর্ক করে দিয়ে ওই কর্মকর্তা বলেছেন, চলমান যুদ্ধের পরিণতি মারাত্মক হতে পারে। গত শুক্রবার রাতে হুথিদের সর্বোচ্চ রাজনৈতিক কাউন্সিলের প্রধান মাহদি আল মাসাত এই ঘোষণা দিয়েছেন।

১৪ সেপ্টেম্বর সৌদি আরবের রাষ্ট্রীয় তেল কোম্পানি আরামকোর দুটি বৃহৎ তেল স্থাপনায় ড্রোন হামলা চালানো হয়। ওই হামলার পর সৌদি আরবের তেল উৎপাদন অর্ধেকে নেমে আসে। ইয়েমেনের ইরান সমর্থিত শিয়াপন্থি হুথি বিদ্রোহীরা এ হামলার দায় স্বীকার করলেও এ ঘটনায় ইরানকে দায়ী করে যুক্তরাষ্ট্র ও সৌদি আরব। যুক্তরাষ্ট্রের তরফে স্যাটেলাইট ছবি প্রকাশ করে হামলার নেপথ্যে ইরান জড়িত রয়েছে বলে দাবি করা হয়। যদিও অভিযোগ অস্বীকার করে আসছে তেহরান। এই ঘটনার জেরে সৌদি আরব এবং সংযুক্ত আরব আমিরাতে আরো সেনা মোতায়েনের ঘোষণা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

গত শুক্রবার হুথি বিদ্রোহীদের পরিচালিত আল মাসিরাহ টেলিভিশনে বিদ্রোহী নেতা মাহদি আল মাসাত বলেন, সৌদি অঞ্চলে সামরিক ড্রোন, ব্যালেস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র এবং অন্য সব ধরনের অস্ত্র নিয়ে হামলা বন্ধের ঘোষণা দিচ্ছি। আর তাদের দিক থেকেও একই ধরনের পদক্ষেপের অপেক্ষা করছি। এই হুথি নেতা বলেন, তারা (সৌদি আরব) এই পদক্ষেপকে ইতিবাচক হিসেবে নিতে ব্যর্থ হলে প্রত্যাঘাতের অধিকার আমাদের রয়েছে। তিনি বলেন, ইয়েমেনে চলমান যুদ্ধ কোনো পক্ষই লাভবান হবে না।

 

"