তুরস্কের সফল ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা

প্রকাশ : ০৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:০০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

এসওএম-বি-২ ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রের সফল পরীক্ষা চালিয়েছে তুরস্ক। এ ক্ষেপণাস্ত্রটি কংক্রিটের বাংকারে অনুপ্রবেশে সক্ষম। গত বৃহস্পতিবার দেশটির শিল্প ও প্রযুক্তিবিষয়কমন্ত্রী মুস্তাফা ভারাঙ্ক এ পরীক্ষার কথা নিশ্চিত করেছেন। এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে তুর্কি সংবাদমাধ্যম আনাদোলু এজেন্সি।

টুইটারে দেওয়া পোস্টে এ পরীক্ষা সংক্রান্ত একটি ভিডিও যুক্ত করেছেন তুর্কি মন্ত্রী। এতে দেখা যায়, ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রটি সফলভাবে লক্ষ্যবস্তুতে আঘাত হানছে।

এটিই তুরস্কের প্রথম ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা। দেশটির শিল্প ও প্রযুক্তি বিষয়কমন্ত্রী মুস্তাফা ভারাঙ্ক বলেন, টার্কিশ সায়েন্টিফিক অ্যান্ড টেকনোলজিক্যাল রিসার্চ কাউন্সিল (টিইউবিআইটিএকে)-এর ডিফেন্স রিসার্চ অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউট (এসএজিই) এ ক্ষেপণাস্ত্রের উন্নয়নে কাজ করেছে।

রাষ্ট্রীয় অর্থায়নে পরিচালিত টিইউবিআইটিএকে তুরস্কের শীর্ষস্থানীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিবিষয়ক প্রতিষ্ঠান।

এমন সময়ে তুরস্কের ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষার খবর এলো যার মাত্র এক দিন আগে দেশটির পারমাণবিক অস্ত্র কর্মসূচিতে বাধা দেওয়ায় ক্ষমতাধর দেশগুলোর সমালোচনা করেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট রিসেপ তয়িপ এরদোয়ান। গত বুধবার তুরস্কের ক্ষমতাসীন দল একে পার্টির এক অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, আঙ্কারার নিজের পারমাণবিক অস্ত্র গড়ে তোলার ক্ষেত্রে পারমাণবিক শক্তিধর দেশগুলোর বাধা মেনে নেওয়া যায় না।

রিসেপ তয়িপ এরদোয়ান বলেন, পারমাণবিক ওয়্যারহেডসহ ক্ষেপণাস্ত্র রয়েছে অনেক দেশের। একটি নয়, অনেক। কিন্তু তারা বলে আমরা এটা গড়ে তুলতে পারব না। আমি এটা মেনে নিতে পারছি না।

এরদোয়ান ইঙ্গিত দেন, ইসরায়েলের মতো একই ধরনের পারমাণবিক সুরক্ষা তিনি

তুরস্কের জন্যও চান। তিনি

বলেন, আমাদের পাশেই

রয়েছে ইসরায়েল, প্রায় প্রতিবেশী। পারমাণবিক অস্ত্র দিয়ে অন্য দেশকে তারা ভয় দেখায়। কেউ তাদের কিছু করতে পারে না। সূত্র: আনাদোলু এজেন্সি, রয়টার্স।

 

"