লোকসভা নির্বাচন ২০১৯

মোদি-হাওয়া শেষ হয়নি দাবি করলেন প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশ : ১৫ মে ২০১৯, ০০:০০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

২০১৪-এর মতো এখনো দেশের প্রতিটি ঘরে মোদি-হাওয়া বইছে বলে দাবি করেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। মধ্যপ্রদেশের রতলামে ভোট প্রচারে গিয়ে গতকাল মঙ্গলবার এ নিয়ে বিরোধীদের পাল্টা আক্রমণ করেন তিনি।

গত লোকসভা ভোটের পর থেকে বিভিন্ন রাজ্যের বিধানসভা ভোট ও উপনির্বাচনে বিজেপিকে হারের মুখ দেখতে হয়েছে। বিরোধীরা তো বটেই, মোদি হাওয়ার অস্তিত্ব নিয়ে বিজেপির ভেতর থেকেই প্রশ্ন উঠছিল। লোকসভা ভোটের আগে বিরোধী দলগুলো সেই প্রচারকে আরো তীব্র করে দিয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার এরই জবাব দিয়েছেন মোদি। এ দিন তার মন্তব্য, প-িতরা দাবি করেছেন এবারের ভোটে নাকি কোনো হাওয়া নেই। দিল্লি থেকে বিভিন্ন ধরনের গালগল্প তৈরি করা হচ্ছে। প্রথমে তাদের অনেকে বলছিলেন, কোনো হাওয়া নেই। তবে এবার ভোট পড়েছে গতবারের থেকে বেশি। সেটাই তাদের উদ্বিগ্ন করে তুলেছে। মোদি বলেন, তারা জানেন না, দুই ধরনের ভোটার এবার রেকর্ড গড়ছেন। যুব সমাজের বন্ধুরা, যারা প্রথমবার ভোট দিচ্ছেন। আর মা-বোনেরা, যারা তাদের ভাইকে জেতাবেন বলে মনস্থির করে ফেলেছেন। কারণ, তাদের ভাই ধর্ষকদের মৃত্যুদ- নিশ্চিত করেছে। প্রধানমন্ত্রীর দাবি, নারীরা তাকে আবার প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দেখতে চান। কারণ, রান্নার গ্যাস আর বিদ্যুতের সমস্যা মিটিয়ে দিয়েছেন তিনি। মোদির মন্তব্য, যখন মা-বোনেরা বাইরে বেরিয়ে আসেন, তখনো প-িতেরা বুঝতে পারেন না, ঢেউ কোথা থেকে আসছে। আসলে (বিজেপির পক্ষে) ঢেউ আসছে এখন প্রতিটি বাড়ি থেকেই।

রাজীব গান্ধীর বন্ধু স্যাম পিত্রোদার সাম্প্রতিক ‘হুয়া তো হুয়া’ মন্তব্য নিয়ে এ দিন কংগ্রেস তথা গান্ধী পরিবারকে নিশানা করেন প্রধানমন্ত্রী। তার দাবি, ‘হুয়া তো হুয়া’ শুধু একটা শব্দবন্ধ নয়, এটা কংগ্রেসের আদর্শ আর ঔদ্ধত্যের প্রকাশ। ‘হুয়া তো হুয়া’ দুর্নীতি নিয়ে কংগ্রেসের জবাব। মোদি বলেন, মহাভোজাল লোকেরা বলছেন এসব কথা। আর মানুষ এখন মহাভেজাল লোকেদের বলছেন, বহুত হুয়া। প্রধানমন্ত্রীর দাবি, ভোপাল গ্যাস দুর্ঘটনা, কমনওয়েলথ দুর্নীতি, কয়লা ও টু-জি কেলেঙ্কারির ঘটনা রাহুল গান্ধীর দল ক্ষমতায় থাকার সময়ে হয়েছে। আর তারাই এখন বলছেন, হুয়া তো হুয়া।

 

"