ছত্তিশগড়ে মাওবাদীদের ভোট বানচালের চেষ্টা নস্যাৎ

প্রকাশ : ১২ এপ্রিল ২০১৯, ০০:০০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

অরুণাচল প্রদেশ, অসম, ছত্তিশগড়, মণিপুর, মেঘালয়, উত্তরাখান্দ এই ছয়টি রাজ্যের অনেকগুলো আসনে ভোট নেওয়া হয়েছে গতকাল বৃহস্পতিবার।

ছত্তিশগড়ের বস্তারে ভোটের দিন সকালে মাওবাদী-জওয়ান সংঘর্ষ। চলল গোলাগুলি। নারায়ণপুরের ফরাসগাঁওতে আইটিবিপি জওয়ানদের একটি কনভয় ভোটগ্রহণ কেন্দ্রের দিকে যাওয়ার সময় হামলা চালায় মাওবাদীরা। যদিও পাল্টা গুলি চালিয়ে মাওবাদীদের দলটিকে হঠিয়ে দেন আইটিবিপি জওয়ানরা। নির্দিষ্ট বুথে পৌঁছনোর পর সেখানে ভোটগ্রহণও শুরু হয়েছে বলে জানা যায় সংবাদসংস্থা সূত্রে।

সকাল সকালই ভোট দিয়েছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী কিরণ রিজিজু, আরএসএস প্রধান মোহন ভাগবত, ওয়াইএসআর কংগ্রেসের প্রধান জগনমোহন রেড্ডি। প্রথম দুই ঘণ্টায়, অর্থাৎ সকাল ৯টা পর্যন্ত নাগাল্যান্ডে ভোট পড়েছে ২১ শতাংশ। এখানে ভোট হচ্ছে একটি লোকসভা আসনে। প্রথম দুই ঘণ্টায় উত্তরপ্রদেশে ভোট পড়েছে ১০ শতাংশ। ছত্তীসগঢ়ের বস্তারে প্রথম দুই ঘণ্টায় ১০.২ শতাংশ ভোট পড়েছে বলে জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন। তেলঙ্গানায় ভোট পড়েছে ১০.৬ শতাংশ, অসমে ভোট পড়েছে ১০.২ শতাংশ, অরুণাচল প্রদেশে ভোট পড়েছে ১৩.৩ শতাংশ।

দামামা বেজে গিয়েছিল ৪ মার্চ। গতকাল বৃহস্পতিবার যুদ্ধটাও শুরু হয়ে গেল। সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনের ভোটগ্রহণ শুরু হলো দেশে। ১৮টি রাজ্য এবং দুটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের ৯১টি লোকসভা আসনের জন্য ভোটগ্রহণ আজ। কোথায় সরাসরি সংঘাতে বিজেপি এবং কংগ্রেস। কোনো কোনো আসনে বিজেপির লড়াই আঞ্চলিক শক্তির সঙ্গে। কোথাও আবার দুই বৃহত্তম জাতীয় দলই পেছনের সারিতে, মূল লড়াইয়ে রাজ্য দলগুলো। তবে নরেন্দ্র মোদির বিরুদ্ধে কংগ্রেস রাহুল গান্ধীকে তুলে ধরার পরে এই প্রথম সাধারণ নির্বাচনের মুখোমুখি দেশ এবং সেই প্রশ্নকে সামনে রেখে দেশজুড়ে ভোটগ্রহণ এই প্রথমবার। অরুণাচল প্রদেশ, অসম, ছত্তীসগঢ়, মণিপুর, মেঘালয়, উত্তরাখান্দ এই ছয়টি রাজ্যের অনেকগুলো আসনে ভোট নেওয়া হচ্ছে আজ। এই রাজ্যগুলোতে মূল লড়াই বিজেপি এবং কংগ্রেসের মধ্যেই।

 

"