মদ্যপ বরের পোশাক খুলে ফেরত পাঠাল কনে

প্রকাশ : ১২ মার্চ ২০১৯, ০০:০০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

টলতে টলতে বিয়ের আসরে ঢুকেছিলেন বর। মদ্যপ হবু বরের মাতলামির কারণে বিয়ের আসরেই তাকে নাকচ করে দিয়েছেন ২০ বছর বয়সী কনে। শুধু তাই নয়, মাতাল বরকে আটকে রেখে তার পোশাক-পরিচ্ছদ খুলে নিয়ে খালি গায়ে ফেরত পাঠাল কনেপক্ষ।

বিয়ের আসরে এমন ঘটনা ঘটেছে ভারতের বিহারের ছপরা জেলার তরৈয়া থানার ডুমরি ছপিয়া গ্রামে। ছপরার মসফসল থানা এলাকার মগাইডিহা গ্রাম থেকে ডুমরি ছপিয়ায় বিয়ে করতে গিয়েছিলেন শিবপূজন সাহের ছেলে বাবলু কুমার।

কনেপক্ষের লোকজন বলছেন, শুধু বর নন তার সঙ্গে আসা অন্য অতিথিদের অনেকেই মদ্যপ অবস্থায় ছিলেন। এরপরই শুরু হয় বাকবিতন্ডা। বিয়ে আসরে পৌঁছে মাতলামি শুরু করেছিলেন বর। বিয়ের রীতি-রেওয়াজ চলাকালীন অশালীন আচরণ করছিলেন তিনি। এমনকি ঠিকমতো দাঁড়াতেও পারছিলেন।

এই অবস্থার প্রতিবাদ জানিয়ে বিয়ের আসর থেকে উঠে যান পাত্রী রিঙ্কি কুমারী। আত্মীয়স্বজনরা প্রথমে তাকে বিয়েতে রাজি করানোর চেষ্টা চালালেও শেষ পর্যন্ত নিজের সিদ্ধান্তেই অনড় থাকেন তিনি।

রিঙ্কির এমন সিদ্ধান্তের পর বর এবং তার সঙ্গে আসা অতিথিদের পর দিন সকাল পর্যন্ত আটকে রাখে কনেপক্ষের লোকজন। এখানেই শেষ নয় বিয়েতে কনেপক্ষের দেয়া সামগ্রী, গহনাসহ যাবতীয় উপহার ফেরত নিয়ে নেয় রিঙ্কির পরিবার। এরপর ছেলের জামা-কাপড় খুলে নিয়ে বাড়ি পাঠানো হয় বরযাত্রীকে।

 

"