পাকিস্তানের সঙ্গে নতুন সম্পর্কের আশা

প্রকাশ : ০৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

পাকিস্তানে ৩০ কোটি মার্কিন ডলার অর্থসহায়তা বাতিল ঘোষণার পর দেশটিতে সফর করছেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও। আর এ সফরকে কেন্দ্র করে এশিয়ার দেশ পাকিস্তানের সঙ্গে নতুনভাবে সম্পর্ক তৈরির আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন এ মার্কিন কূটনীতিক।

গত মঙ্গলবার ইসলামাবাদের উদ্দেশে রওনা করার আগে এমন মন্তব্য করেন পম্পেও। পরে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা যায়। খবরে বলা হয়, দক্ষিণ এশিয়ার এ সফরে পাকিস্তানের নতুন প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন মাইক পম্পেও।

এ ছাড়া সফরের আগে ব্রিফিংয়ে আফগানিস্তানের মার্কিন রাষ্ট্রদূত জালমেই খলিলজাদকে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ওই দেশেরই উপদেষ্টা হিসেবে ঘোষণা দেন তিনি।

দক্ষিণ এশিয়ায় পম্পেওয়ের এ সফরের আগে জঙ্গিগোষ্ঠীর বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নিতে ব্যর্থ হওয়ায় পাকিস্তানে ৩০ কোটি মার্কিন ডলার অর্থসহায়তা বাতিলের ঘোষণা দেয় যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনী।

সেন্ট্রাল ইন্টেলিজেন্স এজেন্সির (সিআইএ) সাবেক এ পরিচালক সফরের বিষয়ে বলেন, এখন পাতা উল্টানোর সময়। পাকিস্তানে নতুন নেতৃত্ব এসেছে। তার সময়ের শুরুতেই আবার দুই দেশের সম্পর্ক স্থাপনে কাজ করতে চাই। পম্পেও বলেন, আমাদের দুই দেশের জন্যই অনেক চ্যালেঞ্জ রয়েছে। কিন্তু আমরা আশাবাদী নতুন নেতৃত্বের মাধ্যমে আমরা কিছু বিষয় পাব।

জঙ্গি কার্যক্রমের নিরাপদ স্থান হিসেবে পাকিস্তানকে নিয়ে দীর্ঘদিন থেকে নানা অভিযোগ তুলে আসছে যুক্তরাষ্ট্র ও অন্যান্য পশ্চিমা দেশগুলো। এ সফর শেষে ভারত সফরের কথা রয়েছে মাইক পম্পেওয়ের। ভারত সফরে তার সঙ্গে যোগ দেবেন মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী জিম ম্যাটিস।

"