মূর্তি ভাঙচুর থামছেই না

ক্ষোভের মুখে বিজেপি

প্রকাশ : ০৯ মার্চ ২০১৮, ০০:০০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

ক্ষমতাসীন বিজেপির প্রার্থী জয়ের পর ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যে লেনিনের মূর্তি ভাঙচুরের ঘটনা দেশজুড়ে হইচই ফেলে দেয়। এ নিয়ে কর্তৃপক্ষের কঠোর অবস্থানের পরও পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করা যাচ্ছে না। এরই মধ্যে গতকাল কেরলের কান্নুরে ভারতের স্বাধীনতা সংগ্রামের নায়ক মহাত্মা গান্ধীর মূর্তি ভেঙে দেওয়া হয়েছে বলে এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

কান্নুরের থালিপরবা এলাকায় কিছু অজ্ঞাত ব্যক্তি প্রথমে গান্ধীর চশমা ভেঙে দেন, পরে মূর্তিটি ভেঙে পালিয়ে যান তারা। স্থানীয় পুলিশ ঘটনাটি খতিয়ে দেখছে। সংবাদমাধ্যম আজকাল বলছে, কেরল ছাড়াও তামিলনাড়ুতে বাবা আম্বেদকরের মূর্তিতে কালি ছিটিয়ে দিয়েছে দুর্বৃত্তরা। এর আগে বুধবার উত্তর প্রদেশের মিরাটে বাবা সাহেবের মূর্তিও খন্ডিত করে দেওয়ার ঘটনা সামনে আসে।

বুধবার হাতুড়ি দিয়ে ভেঙে ফেলা হয় কলকাতায় অবস্থিত শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের আবক্ষ মূর্তি। কালি লেপে দেওয়া হয় সেই মূর্তির মুখে। কেওড়াতলা শ্মশানসংলগ্ন পার্কের ওই ঘটনার প্রতিবাদে সরব হয়েছেন শাসক দলের নেতা-নেত্রী, সাধারণ মানুষসহ বিশিষ্টজনরা। কারো মতে, এটি বিচ্ছিন্ন ঘটনা মাত্র। কারো মতে, এ নিয়ে দায় এড়াতে পারে না দেশের সরকার। এর আগে মঙ্গলবার রাতে তামিলনাড়ুর ভেলোরের তিরুপাত্তুরে পেরিয়ারের মূর্তির ওপরে হামলা হয়।

দ্রাবিড় আন্দোলনের পুরোধা পেরিয়ারের আবক্ষ মূর্তি লক্ষ্য করে পাথর ছোড়ার ঘটনায় মুথুরামন এবং ফ্রান্সিস নামে দুই ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। মুথুরামন বিজেপি এবং ফ্রান্সিস সিপিআই কর্মী বলে পুলিশের বরাত দিয়ে আনন্দবাজার পত্রিকার প্রতিবেদনে বলা হয়।

"