টাঙ্গাইলে বোমা হামলা মামলা

জেএমবির ১৪ সদস্যের ২০ বছর করে কারাদন্ড

প্রকাশ : ০৯ আগস্ট ২০১৭, ০০:০০

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি

২০০৫ সালের ১৭ আগস্টের সিরিজ বোমা হামলা মামলার রায়ে টাঙ্গাইলে জেএমবির ১৪ সদস্যকে ২০ বছর করে সশ্রম কারাদন্ড দিয়েছে আদালত। গতকাল মঙ্গলবার টাঙ্গাইলের প্রথম অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আবুল মনসুর আহমেদ এই রায় দেন। একই সঙ্গে দন্ডিতদের ৩০ হাজার টাকা করে জরিমানা, অনাদায়ে আরো তিন বছর করে সশ্রম কারাদন্ডাদেশ দেয় আদালত। তারা হলেন দেলোয়ার হোসেন ওরফে দেলোয়ার, ইয়ামিন মিয়া, শহীদুল ইসলাম, এনায়েতুল্লাহ, আব্দুল্লাহ আল মামুন, আরমান বিন আজাদ, রাসেল, হাবিবুর রহমান হাবিব, মিজান, আব্দুল আহাদ, রুস্তম, তারিক, আব্দুল্লাহ তাসনীন ও জিয়াউর রহমান।

আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে আইনজীবী ছিলেন অতিরিক্ত পিপি মনিরুল ইসলাম খান এবং আসামিদের জন্য নিযুক্ত রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী শামিম চৌধুরী দয়াল।

পিপি মনিরুল ইসলাম খান জানান, ২০০৫ সালের ১৭ আগস্ট সারাদেশে একযোগে সিরিজ বোমা হামলার ঘটনা ঘটায় জামা‘য়াতুল মুজাহিদিন বাংলাদেশ (জেএমবি)। ওইদিন দন্ডিতরা টাঙ্গাইল শহরের টেম্পোস্ট্যান্ড, কোর্ট চত্বর এবং শহীদ জগলু রোডে বোমার বিস্ফোরণ ঘটায়। এ ঘটনায় টাঙ্গাইল সদর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) বোরহান উদ্দিন বাদী হয়ে ওইদিনই মামলা করেন। পুলিশ তদন্ত শেষে ২০১২ সালের ২৭ ডিসেম্বর ১৭ জনের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে। আসামিদের বিরুদ্ধে ১৯০৮ সালের বিস্ফোরকদ্রব্য আইনের ৩/৪/৬ ধারাসহ ১৯৭৪ সালের বিশেষ ক্ষমতা আইনের ১৫ ধারায় অভিযোগ আনা হয়। দীর্ঘ শুনানি শেষে আদালত গতকাল মঙ্গলবার ১৪ জনের বিরুদ্ধে এই রায় ঘোষণা করে। মামলার অন্য তিন আসামি শায়খ আব্দুর রহমান ইবনে আব্দুল্লাহ ওরফে এহসান, সিদ্দিকুর রহমান ওরফে আজিজুল ইসলাম ওরফে বাংলা ভাই এবং হাবিল আদালতের আদেশে মৃত্যুদন্ডে দন্ডিত হয়েছেন।

"