বিয়ের প্রলোভন

ভুয়া বিসিএস ক্যাডারের কাণ্ড

প্রকাশ : ০২ জুন ২০২০, ০০:০০

নিজস্ব প্রতিবেদক

জনপ্রশাসন কর্মকর্তা পরিচয়ে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ৭৫ লাখ টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগে রাজধানীতে একজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ-সিআইডি। গোলাম মোস্তফা (৩৮) নামের ওই ব্যক্তিকে গতকাল রোববার রাতে উত্তরা ১১ নম্বর সেক্টরের একটি অ্যাপার্টমেন্ট থেকে আটক করা হয় বলে সিআইডির সহকারী পুলিশ সুপার সুমন রেজা জানান।

তিনি বলেন, প্রাথমিকভাবে জানা গেছে, মোস্তফার বাড়ি কুড়িগ্রামে। তারা দুই ভাই এক বোন, তাদের বাবা স্কুলশিক্ষক ছিলেন। যেখান থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে, সেটা তার ভাড়া করা ফ্ল্যাট। প্রতারণার মাধ্যমে টাকা জোগাড় করে বিদেশে যাওয়ার চেষ্টায় ছিলেন তিনি। সিআইডির এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গোলাম মোস্তফা নিজেকে ২৪তম বিসিএস প্রশাসন ক্যাডারের কর্মকর্তা হিসেবে কখনো সচিবালয়ে কর্মরত উপসচিব, কখনো ম্যাজিস্ট্রেট পরিচয় দিতেন। ঘটকদের মাধ্যমে বিত্তবান ও চাকরিজীবী অবিবাহিত মেয়েদের সঙ্গে যোগাযোগ করে বিশ্বস্ততা অর্জনের চেষ্টা করতেন। ভালো ছেলের সঙ্গে মেয়ের বিয়ে দেওয়ার কথা ভেবে সরল বিশ্বাসে প্রতারকের সব কথা মেনে নিত বিবাহযোগ্য মেয়ের মা-বাবা। আর এই সুযোগটি নিত প্রতারক মোস্তফা। ফলে কখনো পিএইচডি করতে বিদেশ যাওয়া, বদলি বাতিল করা বা দুদকে সমস্যা হয়েছে বলে তাদের কাছ থেকে মোটা অঙ্কের টাকা নিয়ে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন করে দিত মোস্তফা। এভাবে পাঁচজনের কাছ থেকে ৭৫ লাখ টাকা হাতিয়ে নেওয়ার পর ভুক্তভোগী এক ব্যাংকার সম্প্রতি ক্যান্টনমেন্ট থানায় মামলা করলে সিআইডি তদন্ত শুরু করে। এরপর ধরা পড়েন এই মোস্তফা।

 

"