বাগাড়ের দাম ৩১ হাজার

প্রকাশ : ০৯ নভেম্বর ২০১৯, ০০:০০

রাজবাড়ী (গোয়ালন্দ) প্রতিনিধি

রাজবাড়ীর গোয়ালন্দে পদ্মা নদীতে ৩১ কেজি ওজনের একটি বাগাড় মাছ ধরা পড়েছে। এটি চলতি মৌসুমে পদ্মায় ধরা পড়া সবচেয়ে বড় মাছ বলে জানিয়েছেন উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা। গতকাল শুক্রবার ভোরের দিকে মাছটি উপজেলার দেবগ্রাম ইউনিয়ন এলাকায় ধরা পড়ে। পাবনার আমিনপুর থানার ঢালারচর এলাকার জেলে মোস্তাক হালদারের জালে মাছটি ওঠে বলে দৌলতদিয়া ঘাটের মাছ ব্যবসায়ীরা জানিয়েছেন। দৌলতদিয়া ঘাট থেকে নিলামে মাছটি ৯৫০ টাকা কেজি দরে কেনেন স্থানীয়

মাছ ব্যবসায়ী মো. মাসুদ মোল্লা। পরে তিনি ঢাকার গুলশানের এক ব্যবসায়ীর কাছে ১ হাজার টাকা কেজি ধরে তা বিক্রি করেন। মাছ ব্যবসায়ী মো. মাসুদ মোল্লা বলেন, তিনি মাছটি দৌলতদিয়া ঘাটের কেছমত শেখের আড়ত থেকে কেনেন। ওই আড়তে মাছটির নিলাম হয়েছিল।

জেলে মোস্তাক হালদারের বরাত দিয়ে মাসুদ মোল্লা বলেন, বৃহস্পতিবার রাতে মোস্তাক তার সহযোগীদের নিয়ে পদ্মায় ‘গাইল্যা ফাঁইস্যা’ জাল দিয়ে মাছ ধরতে শুরু করেন। তারা উজানে রাজবাড়ী সদর উপজেলার উড়াকান্দা এলাকায় জাল ফেলে নৌকায় বসে ভাটির দিকে ভাসতে থাকেন। এরপর ভোরের দিকে তাদের নৌকা গোয়ালন্দের দেবগ্রাম ইউনিয়নের সীমানায় গভীর খারে (মাছ বসবাসের উপযোগী স্থান হিসেবে পরিচিত) পৌঁছায়।

মাসুদ মোল্লা জানান, ওই খারে পৌঁছার পর মোস্তাকরা জাল তুলতে শুরু করেন। জাল তোলার শুরুতেই তারা ভারী ঝাঁকি অনুভব করেন। পরে প্রায় এক ঘণ্টা চেষ্টার পর মোস্তাকরা নৌকার কাছে জাল গোটাতে সক্ষম হন। সূর্য ওঠার পর তারা দৌলতদিয়া ঘাট-সংলগ্ন বড় মাছের বাজারে বাগাড়টি নিয়ে আসেন। সকাল সাড়ে ১০টার দিকে দৌলতদিয়ার ফেরিঘাটে গিয়ে দেখা যায়, ৫ নম্বর পন্টুনের সঙ্গে মোটা রশি দিয়ে মাছটি বেঁধে পানিতে রাখা হয়েছে। কিছু উৎসুক মানুষ সেখানে ভিড় করে। মাছটি তখন বিক্রির জন্য আড়তে আনা হয়। মাসুদ মোল্লা জানান, তিনি গুলশানের এক ব্যবসায়ীর কাছে মাছটি ১ হাজার টাকা কেজি দরে বিক্রি করেছেন।

উপজেলার ভারপ্রাপ্ত মৎস্য কর্মকর্তা মো. রেজাউল শরীফ বলেন, এই মৌসুমে পদ্মা নদীতে মাঝেমধ্যে বড় ধরনের মাছ পাওয়া যাবে। তবে এত বড় মাছ এই মৌসুমে প্রথম ধরা পড়ল। তিনি জানান, সাধারণত কৌনা, ফাঁইস্যা জালে এ ধরনের বড় মাছ ধরা পড়ে থাকে।

"