লাকসামে স্থানীয় সরকারমন্ত্রী

অনৈতিক কাজে জড়ালে কাউকে ছাড় নয়

প্রকাশ : ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০০:০০

মনোহরগঞ্জ (কুমিল্লা) প্রতিনিধি

স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায়মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম বলেছেন, আমাদের দলের কেউ অনৈতিক কোনো কাজে জড়ালে তাকে ছাড় দেওয়া হবে না। কেউ বিচার-সালিসের নামে টাকা খেলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। গতকাল শনিবার সকালে লাকসাম উপজেলা আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের যৌথ বর্ধিত সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। মো. তাজুল ইসলাম বলেন, দেশের প্রতিটি গ্রামকে শহরে রূপান্তরিত করার অঙ্গীকার নিয়ে কাজ শুরু করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। শহরের সব সুযোগ-সুবিধা গ্রামে পৌঁছে দেওয়া হবে। উন্নয়নের জোয়ারে বিশ্বকে তাক লাগিয়ে দেওয়া হবে। বাংলাদেশ উন্নত দেশের কাতারে স্থান করে নেবে। শেখ হাসিনা আমাকে যে দায়িত্ব দিয়েছেন, আমি যাতে সততার সঙ্গে সে দায়িত্ব পালন করতে পারি, সে জন্য আপনারা দোয়া করবেন। মন্ত্রী বলেন, জীবিকা নির্বাহের জন্য সততার ভিত্তিতে ব্যবসা-বাণিজ্য করতে হবে। সরকারের উন্নয়ন সহযোগিতার জন্য পৌর মেয়র, কাউন্সিলর, ইউপি চেয়ারম্যান, মেম্বার, দলীয় নেতাকর্মী ও জনগণের সমন্বয়ে কাজ করলে আগামী দিনগুলোতে দেশ আরো দ্রুত এগিয়ে যাবে। সে জন্য দলের ভাবমূর্তি নষ্ট হয়, এমন কোনো কাজ করা যাবে না।

এলজিআরডিমন্ত্রী বলেন, যারাই দলবিরোধী ও অনৈতিক কাজে লিপ্ত হয়েছেÑ তাদের সাজা ভোগ করতে হয়েছে। দলীয় পদ পেয়ে ক্ষমতার অপব্যবহার করা যাবে না। ক্ষমতার অপব্যবহারকারী কাউকেই ছাড় দেওয়া হবে না।

এলজিআরডিমন্ত্রী আরো বলেন, দারিদ্র্যবিমোচন ও অর্থনৈতিক উন্নয়নে সরকার নিরলসভাবে কাজ করছে। দারিদ্র্যের হার কমিয়ে মাথাপিছু আয় বাড়ানোর লক্ষ্যেও কাজ করছে সরকার। সরকারের এ আমলে শতভাগ উন্নয়ন পৌঁছে যাবে সবার ঘরে ঘরে।

লাকসাম পৌরসভা আওয়ামী লীগের সভাপতি তাবারক উল্যাহ কায়েসের সভাপতিত্বে যৌথসভায় আরো বক্তব্য দেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট ইউনুছ ভূঁইয়া, কুমিল্লা জেলা পরিষদের সদস্য অ্যাডভোকেট আবু তাহের, অ্যাডভোকেট তানজিনা আক্তার, লাকসাম পৌরসভার মেয়র অধ্যাপক মো. আবুল খায়ের, লাকসাম উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি এনায়েত উল্যাহ এফসিএ, সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট রফিকুল ইসলাম হিরা, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মহব্বত আলী, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পড়শী সাহা, সাবেক মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রাশিদা বেগম, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি নিজাম উদ্দিন শামীম, উপজেলা শ্রমিক লীগের সদস্যসচিব নজরুল ইসলাম, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সিহাব খান, লাকসাম উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলমের উপস্থাপনায় সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন লাকসাম উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি সিরাজুল ইসলাম, আবদুল মান্নান মনু, আওয়ামী লীগ নেতা অহিদ উল্যাহ মজুমদার, উপজেলা যুবলীগ নেতা মনিরুল ইসলাম রতন, দলিলুর রহমান মানিক, আবদুল আলিম দিদার, মোশারফ হোসেন মজুমদার, চেয়ারম্যান শাহিদুল ইসলাম শাহিন, ওমর ফারুক, আলী আহম্মদ, হারুনুর রশিদ, রুহুল আমিন, আবদুল আউয়াল, আবদুর রশিদ সওদাগর, উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. সাইফুল ইসলামসহ উপজেলা ও পৌরসভা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ, ছাত্রলীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

 

"