প্রথম চাঁদে হাঁটার মূল ফুটেজ নাসা থেকে গায়েব!

প্রকাশ : ১৪ জুলাই ২০১৯, ০০:০০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

আসছে সপ্তাহে মানব ইতিহাসের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ মিশন অ্যাপোলো ১১-এর ৫০ বর্ষপূর্তি উদ্যাপন করবে নাসা। ওই মিশনের মাধ্যমেই চাঁদের বুকে প্রথমবার পা রাখে মানুষ। অ্যাপোলো ১১ মিশনে চাঁদের বুকে হাঁটার প্রথম ভিডিও ফুটেজ বিশ্বজুড়ে সম্প্রচার করেছিল নাসা। বর্ষপূর্তির আগে ওই ফুটেজের মূল ডেটা টেইপ হারিয়েছে বলে দাবি করেছে মহাকাশ গবেষণা মার্কিন সংস্থাটি। খবর ব্রিটিশ ট্যাবলয়েড মিররের।

নাসার পক্ষ থেকে বলা হয়, নাসা অনুসন্ধান করেছে কিন্তু অ্যাপোলো ১১-এর বেশকিছু অরিজিনাল ডেটা টেইপ পাওয়া যায়নি। ‘অরিজিনাল’ বলা হচ্ছে কারণ এগুলো সরাসরি চাঁদ থেকে ট্রান্সমিট করে রেকর্ড করা হয়েছিল। বিস্তৃত পরিসরে আর্কাইভ অনুসন্ধান করা হয়েছে এবং এই সিদ্ধান্তে আসা হয়েছে যে, এমনটা হতে পারে প্রকল্প ব্যবস্থাপক মনে করেছেন এই টেইপগুলো আর রাখার দরকার নেই কারণ সব ভিডিও এবং ডেটা অন্য জায়গায় রেকর্ড রয়েছে এবং সেগুলো মুছে ফেলা হয়েছে ও পুনরায় ব্যবহার করা হয়েছে। নাসার দাবি ওই টেইপগুলোর ডেটা ম্যানড স্পেসক্রাফট সেন্টারে পাঠানো হয়েছে। ভিডিওটি অন্যান্য জায়গায়ও রেকর্ড করা হয়েছে, অ্যাপোলো ১১-এ চাঁদের হাঁটার কোনো ভিডিও ফুটেজ হারায়নি।

সম্প্রতি নাসার এক শিক্ষানবীশ একটি টেইপকে ‘হারানো’ অ্যাপোলো ১১ টেইপ বলে বিক্রি করেন। এতেই টেইপটি হারানোর খবর সামনে আসে।

গ্রে জর্জ নামের ওই ব্যক্তির দাবি ১৯৭৬ সালে সরকারি নিলাম থেকে প্রায় ২০০ মার্কিন ডলারে তিনি টেইপটি কিনেছেন। অন্যদিকে নাসা বলছে জর্জের টেইপে এমন কিছু নেই যা নাসার কাছেও নেই। সংস্থাটির পক্ষ থেকে আরো বলা হয়, ‘টেইপটির যে বর্ণনা দেওয়া হয়েছে তা সত্যি হলে এটি হিউস্টন থেকে ধারণ করা একটি দুই ইঞ্চি টেইপ, যা বাণিজ্যিক টেলিভিশনে প্রচার করার জন্য কনভার্ট করা হয়েছে এবং এতে এমন কোনো উপাদান নেই যা নাসার কাছে মজুদ নেই।’

উল্লেখ্য, ১৯৬৯ সালে মার্কিন নভোচারী নীল আর্মস্ট্রং, বাজ অলড্রিন ও মাইকেল কলিন্স চন্দ্র পৃষ্ঠে অবতরণ করেন।

 

"