তিন জেলায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৮

প্রকাশ : ০৮ ডিসেম্বর ২০১৮, ০০:০০

প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক

নরসিংদীতে দুই বাসের সংঘর্ষে চারজন নিহতসহ ঢাকার ধামরাইয়ে ও পিরোজপুরের কাউখালীতে সড়কে চারজনের মৃত্যু হয়েছে। প্রতিদিনের সংবাদের প্রতিনিধিদের পাঠানো রিপোর্ট :

নরসিংদী : নরসিংদীতে দুই বাসের সংঘর্ষে এক চালকসহ চারজন নিহত হয়েছেন, এ দুর্ঘটনায় আহত হয়েছেন আরো অন্তত ২০ জন। শিবপুর থানার ওসি আবুল কালাম আজাদ জানান, শিবপুর উপজেলার সৈয়দনগর এলাকায় ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে গতকাল শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে হতাহতের এ ঘটনা ঘটে। নিহতদের মধ্যে তিনজনের পরিচয় পাওয়া গেছে।

তারা হলেন নরসিংদী শহরের উত্তর নাগরিয়াকান্দীর তাহের মিয়ার ছেলে বাসচালক আনোয়ার হোসেন (৫০), শিবপুর উপজেলার ঘোড়ারগাঁও গ্রামের আবদুল হকের ছেলে আলাউদ্দিন (৬০) ও কারারচর এলাকার নাছির উদ্দিনের স্ত্রী রেহানা বেগম (৪৫)।

এ দুর্ঘটনায় আরো অন্তত ২০ জন আহত হয়েছেন জানিয়ে তিনি বলেন, আহতদের প্রথমে নরসিংদী সদর হাসপাতালে ভর্তি করার পর আটজনকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। বেপরোয়া গতির কারণে এ দুর্ঘটনা ঘটেছে। বাস দুটি আটক করা হয়েছে। থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

ধামরাই (ঢাকা) :

ঢাকা ধামরাইয়ে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কে কেলিয়া নামক স্থানে বাসচাপায় মোটরসাইকেল আরোহী মো. মৃদুল আহম্মেদ (২৫), মো. মানিক হোসেন (২২), মো. হৃদয় হোসেন (১৮) নামে চালক এবং দুই মোটরসাইকেল আরোহী নিহত হয়েছে। গতকাল শুক্রবার বিকেল ৫টার সময় ধামরাই থানার কেলিয়া এলাকায় এই দুর্ঘটনাটি ঘটে।

নিহত মৃদুল আহম্মেদ ঢাকা জেলার আশুলিয়া থানার সিন্দুরিয়া গ্রামের মো. জাবেদ আলীর ছেলে, মো. মানিক হোসেন আশুলিয়া থানার সিন্দুরিয়া গ্রামের মো. সোরহাব হোসেনের ছেলে, মো. হৃদয় হোসেন আশুলিয়া থানার সিন্দুরিয়া গ্রামের মো. মমিন হোসেনের ছেলে।

মৃদুল আহম্মেদ গণবিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র, মো. মানিক হোসেন সাভার বিশ্ববিদ্যালয়ের অনার্স দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র, মো. হৃদয় এইবার এসএসসি পরীক্ষার্থী বলে জানা গেছে।

এই ব্যাপারে এলাকাবাসী বলেন, একটি মোটরসাইকেলে তিনজনের কারো মাথায় হেলমেট ছিল না। তবে তাদের মাথায় হেলমেট থাকলে এত বড় ক্ষতি হতো না।

এ ব্যাপারে ধামরাই থানার উপপরিদর্শক (এসআই) ভজন রায় জানান, ঢাকা থেকে মানিকগঞ্জগামী একটি শুভযাত্রা নামের একটি বাস কেলিয়া নামক স্থানে পৌঁছালে মানিকগঞ্জ থেকে সাভার গামী একাটি মোটরসাইকেলকে চাপা দিলে ঘটনাস্থলেই ওই তিনজনের মাথায় আঘাত লাগে। এ ব্যাপারে ধামরাই থানার ইনচার্জ (ওসি) দীপক চন্দ্র সাহা বলেন, মোটরসাইকেলে থাকা তিনজনই হেলমেট ছাড়া ছিল। যার কারণে মাথায় আঘাত লেগে তিনজনের মৃত্যু হয়।

কাউখালী (পিরোজপুর) :

পিরোজপুরের কাউখালীতে সড়ক দুর্ঘটনায় একজন নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় বাসসহ ড্রাইভার ও হেলপারকে আটক করা হয়েছে। গতকাল শুক্রবার দুপুর ২টার দিকে পিরোজপুর-স্বরূপকাঠী সড়কের আশোয়া নামক স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটে। প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, সরোয়ার হোসেন মোল্লা (৪৫) নামে এক যাত্রী যাচ্ছিলেন স্বরূপকাঠী থেকে পিরোজপুরে যাচ্ছিলেন। পথে তিনি বাসের জানালার বাইরে মাথা বের করে মোবাইলে কথা বলছিলেন। এ সময় উপজেলার আশোয়া নামক স্থানে বিপরীত থেকে আসা একটি বাসকে সাইড দিতে গিয়ে একটি গাছ ঘেঁষে চলে যায়। তখন জানালার বাইরে বের করা সরোয়ার হোসেন মোল্লার মাথা গাছের সঙ্গে প্রচন্ড গতিতে ধাক্কা লাগে। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে স্বরূপকাঠী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

"