লাকসামে মোঃ তাজুল ইসলাম এমপি

ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সবাইকে দেশের কল্যাণে কাজ করতে হবে

প্রকাশ : ২০ অক্টোবর ২০১৮, ০০:০০

মনোহরগঞ্জ (কুমিল্লা) প্রতিনিধি

বিদ্যুৎ, জ¦ালানি মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় কমিটির সভাপতি এবং কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি মো. তাজুল ইসলাম এমপি বলেছেন, ‘ধর্ম যার যার, রাষ্ট্র সবার। লাকসাম-মনোহরগঞ্জের উন্নয়নের জন্য সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করতে হবে। এখানে কোনো ধর্ম ও বর্ণের ভেদাভেদ থাকবে না। সকলকে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করতে হবে। ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সকলকে দেশের কল্যাণে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করে যেতে হবে। কোনো ধর্মের লোকদের ক্ষতি করা যাবে না।’ গত বৃহস্পতিবার দুর্গাপূজার নবমীতে লাকসাম উপজেলার বিভিন্ন পূজামন্ডপ পরিদর্শনকালে হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের সঙ্গে শারদীয় দুর্গাপূজার শুভেচ্ছা বিনিময় করেন এবং এসব কথা বলেন তিনি। মোঃ তাজুল ইসলাম এমপি বলেন, ‘যে যার ধর্ম নিজের ইচ্ছামতো পালন করবেন। এটা নিয়ে দ্বিমত পোষণ করা যাবে না। সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির

দেশ হলো আমাদের বাংলাদেশ। তাই সকলকে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বজায় রাখতে হবে।’ এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন লাকসাম উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. জাহাঙ্গীর আলম, লাকসাম উপজেলা চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট ইউনুছ ভূঁইয়া, পৌরসভা মেয়র অধ্যাপক আবুল খায়ের, উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. ইসমাইল হোসেন, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মহব্বত আলী, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রাশিদা আক্তার, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট রফিকুল ইসলাম হিরা, পৌরসভা কাউন্সিলর আবদুল আলিম দিদার, শাহ আলম, আফতাব উল্লাহ চৌধুরী জন্টু, গোলাম কিবরিয়া সুমন, মোহাম্মদ উল্যাহ, উপজেলা যুবলীগ নেতা মনিরুল ইসলাম রতন, মোশারফ হোসেন মজুমদার, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি নিজাম উদ্দিন শামীম, সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক জাহাঙ্গীর আলম, লাকসাম-মনোহরগঞ্জ পেশাজীবী পরিষদের সাধারণ সম্পাদক ডা. রাজীব কুমার সাহা, চেয়ারম্যান ওমর ফারুকসহ অনেকে। গতকাল শুক্রবার বিজয়া দশমীতে দেবী বিসর্জনের মধ্য দিয়ে কুমিল্লার লাকসাম ও মনোহরগঞ্জ উপজেলায় বিউগলের বিদায়ী সুরের মধ্য দিয়ে হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা শেষ হয়েছে।

"