সড়কে ঝরল প্রধান শিক্ষক ও প্রকৌশলীসহ ১১ জনের প্রাণ

প্রকাশ : ১২ অক্টোবর ২০১৮, ০০:০০

প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক

সড়ক দুর্ঘটনায় এলজিইডি প্রকৌশলী ও প্রধান শিক্ষকসহ ১১ জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরো ২৯ জন। গতকাল বৃহস্পতিবার দিনাজপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় এলজিইডির প্রকৌশলী ও এক শিক্ষিকাসহ তিনজন, বরিশালে গৌর নদীতে গাছের সঙ্গে বাসের ধাক্কায় তিনজন, ফরিদপুরের গঙ্গাবর্দী কৃষি কলেজের সামনে গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে মহাসড়কে ট্রাক-মাহেন্দ্রের সংঘর্ষে প্রধান শিক্ষকসহ দুইজন, নাটোরের বড়াইগ্রামে মোটরসাইকেল খাদে পড়ে একজন এবং গত বুধবার রাতে রাজবাড়ির পাংশায় প্রাইভেট কার নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পাশের পুকুরে পড়ে চালক ও যাত্রী হয়েছেন।

দিনাজপুর : দিনাজপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় এলজিইডি প্রকৌশলী ও এক শিক্ষিকাসহ তিনজন নিহত হয়েছেন, আহত হয়েছেন অন্তত ১০ জন। বিরলের বাজনাহারে এবং চিরিরবন্দরের দিনাজপুর-ফুলবাড়ি মহাসড়কের উচিতপুর এলাকায় গতকাল বৃহস্পতিবার এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদফতরের (এলজিইডি) রংপুর বিভাগের অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী আফজাল হোসেন ও বিরলের ধুকুরঝাড়ি কলেজের শিক্ষিকা আঞ্জুমান আরা মুন ও আকলিমা খাতুন। আহতদের মধ্যে আফজাল হোসেনের গাড়ি চালক মো. হাফিজসহ তিনজনকে দিনাজপুর এম আবদুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসাপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বিরল থানার ওসি গোলাম রসুল বলেন, দুপুর সোয়া ১টার দিকে বাজনাহার এলাকায় বোচাগঞ্জগামী বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার পাশে খাদে পড়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই আঞ্জুমান আরা মুন নিহত হন। আর হাসপাতালে আকলিমার মৃত্যু হয়।

চিরিরবন্দর থানার ওসি হারেসুল ইসলাম বলেন, দিনাজপুর জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে প্রধানমন্ত্রীর ভিডিও কনফারেন্সে যোগ দিতে আফজাল হোসেন জিপ গাড়িতে রংপুর থেকে দিনাজপুরে যাচ্ছিলেন। পথে চালক নিয়ন্ত্রণ হারালে জিপটি রাস্তার পাশে একটি গাছের সঙ্গে ধাক্কা খেলে ঘটনাস্থলেই আফজাল হোসেনের মৃত্যু হয়।

বরিশাল : ঢাকা-বরিশাল মহাসড়কের গৌর নদীতে গতকাল গাছের সঙ্গে বাসের ধাক্কায় তিনজন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরো ৮-১০ জন। নিহতদের মধ্যে লিটন রাঢ়ী (৪২) নামে একজনের পরিচয় পাওয়া যায়। তিনি উজিরপুরের বামরাইল এলাকার বাসিন্দা। অজ্ঞাত পরিচয়ে অপর নিহতের বয়স আনুমানিক ৫০ বছর।

বিষয়টি নিশ্চিত করে গৌর নদী হাইওয়ে থানার ওসি শেখ আতিয়ার রহমান জানান, মাওয়া থেকে যাত্রী নিয়ে বরিশালের উদ্দেশে বিএমএফ পরিবহনের একটি বাস যাচ্ছিল। পথিমধ্যে গৌর নদীর বাইচখোলা নামক স্থানে পৌঁছালে গাড়িটি ব্রেক ফেল করে। তাৎক্ষণিক গাড়িটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার পাশের একটি গাছের সঙ্গে ধাক্কা খায়। এতে বাসের সামনের অংশ দুমড়েমুচড়ে যায় এবং ঘটনাস্থলে তিন বাসযাত্রী নিহত ও ৮-১০ জন যাত্রী আহত হয়েছেন। তাদের গৌর নদীর আশোকাঠি হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

নাটোর :

বড়াইগ্রামের জোয়াড়ী ইউনিয়নের শ্রীখন্ডি গ্রামে গতকাল মোটরসাইকেল খাদে পড়ে আজিমুদ্দিনের (৫২) মৃত্যু হয়েছে। তার বাড়ি বড়াইগ্রামের কালিকাপুর এলাকায়।

বড়াইগ্রাম থানার ওসি দিলীপ কুমার দাস জানান, আজিমুদ্দিন সকালে শ্রীখন্ডি এলাকায় তার লেবু বাগান থেকে লেবু তুলে মোটরসাইকেলের পেছনে বেঁধে বাড়ি ফিরছিলেন। পথে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে মোটরসাইকেল সড়কের পাশের খাদে পড়ে যায়। এতে গুরুতর আহত হন তিনি। এ অবস্থায় স্থানীয়রা আজিমুদ্দিনকে বনপাড়ার ক্লিনিকে নিলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

ফরিদপুর :

ফরিদপুরের গঙ্গাবর্দী কৃষি কলেজের সামনে গতকাল সকালে মহাসড়কে ট্রাক-মাহেন্দ্রের সংঘর্ষে প্রধান শিক্ষকসহ দুইজন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরো ৯ জন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, ফরিদপুর থেকে মাগুরাগামী একটি ট্রাক ঘটনাস্থলে আসার পর সামনের চাকা ফেটে যায়। ফলে ট্রাকটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সড়কের ডান পাশে কানাইপুর থেকে ফরিদপুরগামী মাহেন্দ্রকে চাপা দিলে ঘটনাস্থলেই নিহত হন সুজন পাটোয়ারী (২২)। তিনি কানাইপুর ইউনিয়নের ভাটি কানাইপুর গ্রামের মনিরুল ইসলাম পাটোয়ারীর ছেলে। আর ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা যান আজিজুল ইসলাম। তিনি রাইকালী হাজী বাদশা মিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এবং এক ছেলে ও এক মেয়ের বাবা।

পাংশা (রাজবাড়ি) :

কালুখালীর মৃগি-পাংশা সড়কে গত বুধবার রাতে প্রাইভেট কার নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পাশের পুকুরে পড়ে চালক মনিরুল ইসলাম ও যাত্রী রিপন কাজী নিহত হয়েছেন। নিহত মনিরুল ইসলাম মানিকগঞ্জের নবরামপুর গ্রামের হাশেম মোল্লার ছেলে ও রিপন টাঙ্গাইলের বাংলাট মির্জাপুর গ্রামের সজল কাজীর ছেলে। রাতে রিপন মনিরুল ইসলামের প্রাইভেট কারে করে তার শ্বশুরবাড়ি যাচ্ছিলেন।

 

"