প্রথম কলাম

জ্বর হলে গোসল করা কি ঠিক?

প্রকাশ : ০৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০০:০০

প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক

জ্বর হলে গায়ে মোটা কাঁথা কিংবা কম্বল জড়িয়ে শুয়ে থাকলেই আরাম লাগে। জ্বর নিয়ে কেউ গোসল করতে চান না। অনেকেই মনে করেন, জ্বর হলে গোসল করা ঠিক নয়। কিন্তু কখনো কখনো চিকিৎসকরাও জ্বর হলে গোসল করার পরামর্শ দেন। এতে শরীর শান্ত ও ঠান্ডা হয়।

বিশেষজ্ঞদের মতে, জ্বর হলে সারা গায়ে পানি দিতে না চাইলে শুধু মাথাও ধুয়ে ফেলতে পারেন। কিন্তু এরপরই ভালোভাবে মাথা মোছা উচিত। কারণ চুল ভেজা থাকলে শরীর আরো খারাপ হয়ে যেতে পারে। ভারতের পত্রিকা টাইমস অব ইন্ডিয়া গতকাল বুধবার এ খবর জানায়।

জ্বরের সময় সারাক্ষণ মোটা কম্বল জড়িয়ে শুয়ে থাকলে শরীরের তাপমাত্রা কমবে না। বরং শরীর আরো গরম হয়ে উঠতে পারে। গোসল করলে শরীরের তাপমাত্রা কমতে সাহায্য করবে। কিন্তু তার মানে এই নয় যে, জ্বর হলে ওষুধ খেতে হবে না। বরং জ্বর হলে তাপমাত্রা কমাতে ওষুধ খাওয়ার পাশাপাশি গোসল করার পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। তারা বলেছেন, সাধারণ জ্বর হলে গোসল করা যাবে, কিন্তু সব ধরনের জ্বরে গোসল করা ঠিক নয়। যেমন- সার্জারির পর যদি কারো জ্বর হয় তাহলে অবশ্যই গোসল করা ঠিক নয়। জ্বরে গোসল করলে তা শুধু শরীরে আরামই দেয় না, তাপমাত্রাও কমায়। জ্বর হলে দুইভাবে গোসল করা যায়।

১. স্পঞ্জ গোসল : এটা শিশু এবং অল্পবয়সি ছেলেমেয়েদের জন্য প্রযোজ্য। কারণ তারা নিজেরা গোসল করতে পারে না। জ্বর হলে এসব শিশুর বারবার তোয়ালে বা কাপড় ভিজিয়ে গা স্পঞ্জ করে দেওয়া উচিত। ২. যদি শীত শীত অনুভব না হয় তাহলে বড়রা বাথটবে কিংবা স্বাভাবিকভাবে গোসল করতে পারেন। সূত্র : টাইমস অব ইন্ডিয়া

"