মুসলিমদের জন্য ভিসা কড়াকড়ি চান আসামের দুই নেতা

প্রকাশ : ১২ এপ্রিল ২০১৮, ০০:০০

প্রতিদিনের সংবাদ ডেস্ক

ভারতের আসাম রাজ্যের দুই বিজেপি বিধায়ক বাংলাদেশি মুসলিমদের দীর্ঘমেয়াদি ভিসা না দেওয়ার দাবি তুলেছেন। ওই দুই বিজেপি নেতা হলেন শিলাদিত্য দেব ও কৃষ্ণেন্দু পাল। সম্প্রতি ভারতের রাজধানী দিল্লিতে ভারতের পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী জেনারেল (অব.) ভি কে সিংয়ের কাছে লিখিতভাবে এই দাবি জানিয়েছেন তারা। তাদের মতে, বাংলাদেশি মুসলিমরা বেশি দিনের জন্য ভারতে এসে হিন্দু নারীদের বিয়ে করে নিয়ে যায়। মুললিমদের এই কাজটা এ দুই বিজেপি নেতার মতে, লাভজিহাদ। তা হিন্দু সমাজকে ক্ষতিগ্রস্ত করছে।

ঘটনার সূত্রপাত আসামের সীমান্তবর্তী করিমগঞ্জ জেলার তরুণী মৌসুমি দাসের স্বেচ্ছায় ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করে বাংলাদেশি যুবককে বিয়ে করে দেশ ছাড়ার ঘটনাকে কেন্দ্র করে। দুই বিধায়কের অভিযোগ, মৌসুমিকে অপহরণ করে বাংলাদেশে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। বাংলাদেশি আদালত অবশ্য মৌসুমির ধর্মান্তরকরণ বা বিয়েকে বৈধতা দিয়েছে। বাংলাদেশি মুসলিমদের বিরুদ্ধে ‘লাভ জিহাদ’-এর অভিযোগ তুলে অবিলম্বে মৌসুমিকে উদ্ধারের দাবি জানান তারা।

দিল্লিতে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে চিঠি দিয়ে এই দাবি তোলার কথা বিধায়ক শিলাদিত্য ফেসবুকে পোস্ট করে জানিয়েছেন। গত সোমবার সামাজিক গণমাধ্যমটিতে তিনি চিঠির প্রতিলিপি প্রকাশ করেন। চিঠিতে সন্দেহ প্রকাশ করা হয়েছে বাংলাদেশ থেকে মুসলিমদের বৈধ ভিসা নিয়ে আসা পর্যটকদের নিয়েও। তাদের দাবি, ভিসা পদ্ধতি কঠোর করা হোক মুসলিমদের ক্ষেত্রে। তবে হিন্দু বাংলাদেশিদের নিয়ে চিঠিতে কোনো কথা নেই।

"