প্রমাণিত হলো সরকার বিচার কাজে হস্তক্ষেপ করে না

আইনমন্ত্রী

প্রকাশ : ১৩ মার্চ ২০১৮, ০০:০০

নিজস্ব প্রতিবেদক

‘সরকার বিচার কাজে হস্তক্ষেপ করে না, খালেদা জিয়ার চার মাসের জামিনের মধ্য দিয়ে তা আবারও প্রমাণিত হলো’ বলে মন্তব্য করেছেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। গতকাল সোমবার হাইকোর্টে খালেদা জিয়ার জামিন আদেশের পর সচিবালয়ে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন। আনিসুল হক বলেন, ‘বিএনপি নেতারা সারাদেশে বলে বেড়াচ্ছিলেন আমরা নাকি আদালতে ইন্টারফেয়ার (হস্তক্ষেপ) করছি বলে বেইলটা (জামিন) হচ্ছে না। প্রমাণিত হলো, বিচার বিভাগ যে স্বাধীন এবং বিচার কাজে সরকার হস্তক্ষেপ করে না। আগে সবসময় থাকত রাষ্ট্র বনাম আসামি। ২০০৪ সালে বিএনপি যখন ক্ষমতায় ছিল দুর্নীতি দমন আইন পাস করা হয়েছিল। ২০০৭ পর্যন্ত যেটার কোনো কার্যক্রম হয়নি। সেই দুর্নীতি দমন আইনে বলা আছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) হবে পক্ষ, রাষ্ট্র উইল বি দ্য সেকেন্ড পার্ট। তাহলে এখন দাঁড়ায় দুর্নীতি দমন কমিশন বনাম আসামি খালেদা জিয়া। এরপর কর্মপন্থা বা কী করবেনÑসেই সিদ্ধান্ত নেবে দুদক। এটা সরকারের ব্যাপার নয়। সরকারকে বা অ্যাটর্নি জেনারেল অফিসকে হয়তো তারা অবগত করতে পারেন। সেক্ষেত্রে তাদের (দুদক) ব্যাপার এটা।’

পরবর্তী আইনি প্রক্রিয়া কী হবেÑজানতে চাইলে আইনমন্ত্রী বলেন, ‘এখন প্রসিডিউর হচ্ছে...আমি এটাও শুনিনি, হাইকোর্ট কি রিটেন অর্ডার দিয়েছেন। যদি রিটেন অর্ডার থেকে থাকে আপনারা জানেন আমি একজন আইনজীবী। তো সে ক্ষেত্রে সার্টিফাইড কপি যদি ওনারা (আদালত) বলে থাকেন অ্যাডভান্স অর্ডারের সার্টিফাইড কপি চলে যাওয়ার তাহলে অ্যাডভান্স অর্ডারের সার্টিফাইড কপি যাবে। আর যদি ওনারা বলে থাকেন আমরা সার্টিফাইড কপি দিলে পড়ে, তবে সেই আদেশ যতক্ষণ পর্যন্ত না জেলখানায় পৌঁছে আদালতের মাধ্যমে ততক্ষণ পর্যন্ত তাকে রিলিজ করা হবে না।’

"