আবারও ঝলক দেখাবেন আশরাফুল

প্রকাশ : ১৩ আগস্ট ২০১৮, ০৯:৪৭ | আপডেট : ১৩ আগস্ট ২০১৮, ১০:১০

অনলাইন ডেস্ক

অপরাধ করেছিলেন। শাস্তিও পেয়েছেন। সব ধরনের ক্রিকেটে নিষিদ্ধ ছিলেন মোহাম্মদ আশরাফুল। ৩৪ বছর বয়সী এই মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যানের কাছে আজকের দিনটা বিশেষ কিছু। কেননা তিনি এখন মুক্ত। আবারও বাংলাদেশের জার্সিতে মাঠে নামার স্বপ্ন দেখছেন টেস্টে বাংলাদেশের সর্বকনিষ্ঠ সেঞ্চুরিয়ান। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে ওঠা আশরাফুল কি আবারও জাতীয় দলে ফিরতে পারবেন? এই প্রশ্ন এখন তার ভক্তদের।

আশরাফুলের ভাষ্য, আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নিষিদ্ধ হয়েছিলেন মোহাম্মদ আমির। নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে আবার পাকিস্তান জাতীয় দলে ফিরেছেন এই পেসার। আশরাফুলের অনুপ্রেরণা আমির! দীর্ঘ পাঁচ বছর আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের বাইরে যে কঠিন সময় পার করেছেন তিনি, তা বলার অপেক্ষা রাখে না। বাংলাদেশ জাতীয় দলে ফিরতে যে অনেক কাঠখড় পোড়াতে হবে, তা অজানা নয় আশরাফুলের। তাই তো নিয়মিত পারফরম্যান্স করার দিকেই লক্ষ্য থাকবে তার। যদি মাশরাফি-সাকিবদের সঙ্গে আবারও ড্রেসিংরুম শেয়ার করার সুযোগ পান, তাহলে ঝলক দেখানোর প্রত্যাশা ব্যক্ত করেছেন আশরাফুল।

তবে প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন নান্নু আশাহতই করলেন। তিনি সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, এই মুহূর্তে জাতীয় দলে কোনো জায়গা নেই আশরাফুলের। নান্নু বলেন, সে অনেক দিন ধরেই জাতীয় দলের বাইরে আছে। ওর ফিটনেস আন্তর্জাতিক পর্যায়ের জন্য ঠিক আছে কিনা, সেটা আমাদের দেখতে হবে। আশরাফুলের বয়স এখন ৩৪। তবে নান্নু মনে করেন, বয়স কোনো বাধা নয়। জাতীয় দলে সুযোগ পাওয়ার জন্য ফিটনেসের পাশাপাশি ঘরোয়া ক্রিকেটে পারফরম্যান্স করাটা জরুরি। তিনি বলেন, অন্যদের তুলনায় আশরাফুলের পারফরম্যান্স অনেক ভালো হতে হবে। কারণ, সে যে জায়গায় ব্যাট করে, সে জায়গায় অনেক ক্রিকেটার স্থায়ী হয়ে গেছে।

আশরাফুল অবশ্য এসব নিয়ে ভাবছেন না। পাঁচ বছর পর পুরোপুরি নিষেধাজ্ঞা উঠে গেল। তিনি এখন সব ধরনের ক্রিকেটে খেলতে পারবেন। ‘মুক্ত’ আশরাফুল তাই ফেলছেন স্বস্তির নিঃশ্বাস। সব ধরনের পরীক্ষা (ফিটনেস, পারফরম্যান্স) দিয়েই আবারও জাতীয় দলে ফিরতে চান তিনি।

বিপিএলের দ্বিতীয় আসরে পাতানো ম্যাচে জড়িয়ে ২০১৩ সালের জুন মাস থেকে আন্তর্জাতিক ও ঘরোয়া ক্রিকেটে নিষিদ্ধ হন আশরাফুল। তাকে তিন বছরের স্থগিত নিষেধাজ্ঞাসহ মোট ৮ বছরের জন্য নিষিদ্ধ করা হয়েছিল। আপিলের পর সেই শাস্তি কমে হয় ২ বছরের স্থগিতসহ ৫ বছরের নিষেধাজ্ঞা। তিন বছরের নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে ২০১৬ সালের আগস্টে ঘরোয়া ক্রিকেটে ফেরেন আশরাফুল। তবে স্থগিত নিষেধাজ্ঞার কারণে ফ্র্যাঞ্চাইজি ও আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে নিষিদ্ধ ছিলেন তিনি। দুই মৌসুম ঘরোয়া ক্রিকেট খেলে বেশ সাড়াও ফেলেন আশরাফুল। সর্বশেষ ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে রেকর্ড সর্বোচ্চ পাঁচটি সেঞ্চুরির ইনিংস উপহার দিয়েছেন। টানা তিন ম্যাচে সেঞ্চুরি করার রেকর্ড গড়েন।

পিডিএসও/হেলাল