অতিরিক্ত সময়ে স্পেন-রাশিয়ার ম্যাচ

রাশিয়া-১, স্পেন-১

প্রকাশ : ০১ জুলাই ২০১৮, ১৯:৫৩ | আপডেট : ০১ জুলাই ২০১৮, ২১:৫৭

অনলাইন ডেস্ক

নকআউট পর্বের তৃতীয় ম্যাচে স্পেনের বিপক্ষে মাঠে নেমেছে স্বাগতিক রাশিয়া। শেষ ষোলোতে রাশিয়ার বিপক্ষে আত্মঘাতী গোলে ম্যাচের শুরুতেই এগিয়ে গেছে স্পেন।

তবে ডি বক্সের মধ্যে স্পেনের খেলোয়াড়ের হাতে বল লেগে পেনাল্টি পায় রাশিয়া। ফলে পেনাল্টিতে গোল পেয়ে সমতায় ফিরলো রাশিয়া। নির্ধারিত ৯০ মিনিটে সমতা থাকায় ম্যাচ গড়িয়েছে অতিরিক্ত সময়ে।

রুশদের সামনে স্প্যানিশ চ্যালেঞ্জ। কোয়ার্টার ফাইনালে যাওয়ার লড়াইয়ে রাশিয়াকে সমীহ করছেন ইনিয়েস্তারা। ঘরের মাঠে সমর্থনদের পাশে নিয়ে স্পেনের কৌশলের সমাধান খুঁজে পেতে আত্মবিশ্বাসী ডেনিশ চেরিশেভরা।  

আন্ডারডগ হিসেবেই ঘরের মাঠে বিশ্বকাপ শুরু করে নক আউট পর্বে আয়োজক রাশিয়া। সমালোচকদের জবাব দিয়ে গ্রুপ পর্ব পার করেছে কোচ স্ট্যানিশলেভ চেরচেশেভের শিষ্যরা। আর তাই স্পেন দলে ইসকো-কস্তা-ইনিয়েস্তারা থাকা সত্বেও রাশিয়ার বিপক্ষে মাঠে নামার আগে বেশ সতর্ক তারা। 

দেশটির স্ট্রাইকার ডিজুবা মনে করেন, পিকে, রামোসদের টপকে গোল করতে পারবেন তিনি। সেই সঙ্গে আছেন ডেনিস চেরিশেভও। প্রথম ম্যাচে বদলি খেলোয়াড় হিসেবে নেমে রাশিয়ার নায়ক বনে গেছেন তিনি। তবে স্পেনের খেলার ধরণ নিয়ে বেশ চিন্তিত রাশিয়া কোচ। তবে তিনি মনে করেন, রাশিয়া এবারের বিশ্বকাপ আসরে দল হয়ে খেলার যে প্রবণতা দেখিয়েছে সেটাই তাদের কাজটা সহজ করে দেবে।

স্পেনের খেলার ধরণ নিয়ে তিনি বিশ্লেষণ করেছেন। তা থেকে তিনি ২০১০ বিশ্ব চ্যাম্পিয়নদের আটকাতে পারবেন বলে আশাও করছেন। তবে রাশিয়া কোচ চিন্তায় আছেন, আবার স্পেন নতুন কৌশল নিয়ে মাঠে নামে কি না। কারণ তাদের রিয়াল-বার্সা-অ্যথলেটিকো মাদ্রিদ খেলা ফুটবলার আছেন। তারা যেকোন মুহূর্তে পরিকল্পনা বদলে দারুনভাবে মানিয়ে নিতে পারেন।    

দুই দলের শেষ সাক্ষাতও আশা দেখাচ্ছে রাশিয়াকে। শেষ সাক্ষাতে স্পেনকে ৩-৩ গোলে আটকে দিয়েছিল রাশিয়া। তবে স্পেনও কম যায় না। টানা ২৩ ম্যাচে অপরাজিত দল স্পেন। ২০১৬ ইউরোর পরে আর কোন ম্যাচ হারেনি পিকে-রামোসরা। গ্রুপ পর্বে স্পেন তাদের সেরা খেলটা দেখাতে পারেনি। কিন্তু নকআউট পর্বে নতুন করে জ্বলে উঠতে পারে ইনিয়েস্তারা।

পিডিএসও/তাজ