মঙ্গলবার রাতে বিদ্যুৎ উৎপাদনে রেকর্ড

প্রকাশ : ২৫ এপ্রিল ২০১৮, ১৫:৫৫

অনলাইন ডেস্ক

বিরাট পরিবর্তনের মধ্য দিয়ে এগুচ্ছে বাংলাদেশ। বইছে উন্নয়নের বন্যা। তার ধারাবাহিকতায় বিদ্যুত খাতও একের পর এক রেকর্ড গড়ছে। মঙ্গলবার এ খাতে নতুন রেকর্ড হয়েছে।
বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী, মঙ্গলবার রাতে অতীতের সব রেকর্ড ভেঙে সর্বোচ্চ পরিমাণ ১০ হাজার ১৩৭ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন হয়েছে।

রাত ১১টার দিকে এই বিদ্যুৎ উৎপাদন হয়; যা এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ বিদ্যুৎ উৎপাদন। বিদ্যুৎ বিভাগ বলছে, এদিন দিনের বেলায় সর্বোচ্চ বিদ্যুৎ হয় ৮ হাজার ৫২৬ মেগাওয়াট।

এর আগে গত ১৯ মার্চ উৎপাদন ছিল ১০ হাজার ৮৪ মেগাওয়াট। তার আগের রেকর্ডটি ছিল ৯ হাজার ৭০০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ।

মঙ্গলবার কোথায় কতটুকু বিদ্যুৎ উৎপাদন হয়?
পাওয়ার গ্রিড কোম্পানি অব বাংলাদেশ লিমিটেডের তথ্য অনুযায়ী, ২৪ এপ্রিল রাতে ঢাকা অঞ্চলে ৩ হাজার ৭০৪ মেগাওয়াট, চট্টগ্রামে এক হাজার ৩৫, কুমিল্লায় ৮৬৮, ময়মনসিংহে ৪৯৩, সিলেটে ৩৮৫, রংপুরে ৬১৮, রাজশাহী এক হাজার ৭০, খুলনায় এক হাজার ১৯৭ ও বরিশালে ২৫৬ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপন্ন হয়।
সরকারের তথ্য অনুযায়ী, বর্তমান সরকারের দুই মেয়াদে বিদ্যুতের উৎপাদন ক্ষমতা ৩ গুণেরও বেশি বেড়েছে।

সম্প্রতি বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ সংসদে জানান, বর্তমান সরকারের ক্ষমতা গ্রহণের পর থেকে এ পর্যন্ত ৮ হাজার ৮১৯ মেগাওয়াট ক্ষমতাসম্পন্ন ৮৮টি বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণ করা হয়েছে। সরকারের যুগোপযোগী বাস্তবসম্মত টেকসই পরিকল্পনা ও উদ্যোগ গ্রহণের ফলে বিদ্যুৎ খাতে এ উন্নয়ন হয়েছে। 

তিনি বলেন, ২০০৯ সালের জানুয়ারি থেকে গত বছরের ডিসেম্বর পর্যন্ত ২১ হাজার ৬৫৯ মেগাওয়াট ক্ষমতাসম্পন্ন ১১৪টি বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণের চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে। আর বর্তমানে মোট ১৩ হাজার ৭৭১ মেগাওয়াট ক্ষমতাসম্পন্ন ৪৭টি বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণাধীন রয়েছে। এ বিদ্যুৎ কেন্দ্রগুলো ২০১৮ থেকে ২০২৪ সালের মধ্যে পর্যায়ক্রমে চালু হবে।

পিডিএসও/রিহাব