মির্জা ফখরুল সঙ্গে এলে ভালো লাগতো : ওবায়দুল কাদের

প্রকাশ : ১৯ নভেম্বর ২০১৭, ১৭:০২

অনলাইন ডেস্ক

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, রংপুরের ঠাকুরপাড়ায় হামলা ও অগ্নিসংযোগের শিকার হিন্দুদের গ্রাম পরিদর্শনে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সঙ্গে এলে ভালো লাগতো। তিনি বলেন, একই বিমানে মির্জা ফখরুলের সঙ্গে আসতে পারলে আমার ভালো লাগতো। আর কিছু না হোক, শুভেচ্ছা বিনিময় তো হতো। শুনেছি উনার আসন আমার পেছনে ছিল। উনি এলে আমার পাশের সিটেই বসতে দিতাম। কিন্তু নিরাপত্তার অজুহাত দেখিয়ে মির্জা ফখরুল কর্মসূচি বাতিল করেছেন। শুনেছি, উনি নাকি আমার পরের ফ্লাইটে এসেছেন। আজ রোববার দুপুরে রংপুর সদর উপজেলার ব্রাহ্মণপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে আয়োজিত সংহতি সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। এই সময় বাড়িঘর পুড়ে যাওয়া প্রতিটি পরিবারকে ২৫ হাজার ও ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারগুলোকে ১০ হাজার করে টাকা আর্থিক সহায়তা প্রদান করেন তিনি। পরে ঢাকার উদ্দেশে সৈয়দপুর বিমানবন্দর রওনা হন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।
আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক, সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, বি এম মোজাম্মেল হক, বাংলাদেশ হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক রানা দাস গুপ্ত, আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক সুজিত নন্দী, উপ-দপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়া, রংপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মমতাজ উদ্দিন আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক রেজাউল করিম রাজু, মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি সাফিয়ার রহমান সফি, পীরগঞ্জ পৌরসভার মেয়র তাজিমুর ইসলাম শামীমসহ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় নেতারা সঙ্গে ছিলেন।
ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত দিয়ে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেয়ার অভিযোগে হামলা, ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগের শিকার হিন্দুদের বাড়িঘর পরিদর্শনে এসে এই সংহতি সমাবেশে বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক। এসময় তিনি দাবি করেন, নির্বাচনকে ঘিরে প্রতিবেশী রাষ্ট্র ভারতের সঙ্গে সম্পর্ক খারাপ করতে একটি মহল নানাভাবে অপচেষ্টা চালাচ্ছে। যারা এমন ষড়যন্ত্র করছে তারা বোকার রাজ্যে বসবাস করছে। কেননা এইসব অপকর্ম করে নির্বাচন বানচাল করা যাবে না। তিনি আরও বলেন, বিগত সময়ে দেশে একের পর এক যে সাম্প্রদায়িক হামলার ঘটনা ঘটেছে তা একই সূত্রে গাঁথা। ঠাকুরপাড়ায় হামলার ঘটনায় যারা মঞ্চে এবং নেপথ্যে ছিলেন, তারা যতই প্রভাবশালী হোক না কেন রেহাই পাবে না। 

পিডিএসও/মুস্তাফিজ