সাহেদদের দলে ঢোকার দরজা অবশ্যই বন্ধ করতে হবে : নানক

প্রকাশ : ০৯ জুলাই ২০২০, ২০:৩৪ | আপডেট : ০৯ জুলাই ২০২০, ২০:৪০

নিজস্ব প্রতিবেদক

সাহেদরা দলের ভেতর কোন দরজা দিয়ে ঢোকে? সেই দরজা অবশ্যই বন্ধ করে দিতে হবে। একই সাথে যারা সাহেদদের আশ্রয়-প্রশ্রয় দিয়েছে তাদের চিহ্নিত করে অতি দ্রুত তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া উচিত। 

বৃহস্পতিবার এই প্রতিদিনের সংবাদের সঙ্গে আলাপকালে আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক এমন মন্তব্য করেন। তিনি বলেন, সাহেদের বিরুদ্ধে অতি দ্রুত ব্যবস্থা নিতে হবে এবং এদের যারা আশ্রয়-প্রশ্রয় দিয়েছে তাদের চিহ্নিত করে ব্যবস্থা নিতে হবে।

দলীয় সভাপতি শেখ হাসিনা অনুপ্রবেশকারীদের চিহ্নিত করে তাদেরকে দল থেকে বের করে দেয়ার নির্দেশ দিয়েছিলেন। যা আজও বাস্তবায়িত হয়নি প্রসঙ্গে নানক বলেন, অনুপ্রবেশ বন্ধ করার জন্য দলকে বারবার শেখ হাসিনা নির্দেশনা দিয়েছেন। তারপরও তার নির্দেশনা যেহেতু বাস্তবায়ন হয়নি বা প্রতিফলন হয়নি বা কার্যকর হয়নি, সেই দায় আমরা কোনওভাবেই এড়াতে পারি না।

আওয়ামী লীগের দুঃসময়ের নেতা জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেন, গত ১১ বছরে হাইব্রিড বা যাদেরকে অনুপ্রবেশকারী বলা হয় তারাই বিভিন্ন দুর্নীতি করছে, যারা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হয়েছে সেই তালিকাতেও অনুপ্রবেশকারীরা ত্রাণের টাকা চুরি করছে, সাহেদের মতো ঘটনা ঘটছে-এটা পরিকল্পিত ষড়যন্ত্রের অংশ। তবে সবকিছুর ভিতরে আমি ষড়যন্ত্র দেখি না। এখানে আমাদের দুর্বলতা রয়েছে এ কথা অস্বীকার করলে চলবে না। হ্যাঁ, এটাও ঠিক পরিকল্পিতভাবে দলে ঢুকে দলের ভাবমূর্তি নষ্ট করছে। কিন্তু এ ব্যাপারে যে সতর্কতা অবলম্বন করার কথা ছিলো শেখ হাসিনার নির্দেশনা বাস্তবায়নের জন্য। তার কার্যকর ভূমিকা পালনে আমরা অবশ্যই ব্যর্থ হয়েছি। এদের বিরুদ্ধে এবং তাদের পৃষ্ঠ-পোষদেরও চিহ্নিত করা দরকার।